ঢাকা, বুধবার 28 July 2021, ১৩ শ্রাবণ ১৪২৮, ১৭ জিলহজ্ব ১৪৪২ হিজরী
Online Edition
  • কবিতা

    এক অচেনা ঝড় জয়নুল আবেদীন আজাদ   কত আশায় ওরা রোপণ করেছিল স্বপ্ন  বোরো ধানের চারাতো স্বপ্নই, স্বপ্ন মেললো ডানা- জমিনের সবটুকু ভরে গেল সবুজে বাতাসে দুলছে সোনালী শীষ, এমন দৃশ্যে হেসে ওঠে দরিদ্র পরিবার। তুলবে গোলায় পুষ্ট ধান।   হঠাৎ এলো এক অচেনা ঝড় উষ্ণ এমন ঝড় আগে দেখেনি কেউ। ধানের সবুজ ক্ষেত হয়ে গেছে সাদা দুধে ভরা ধান এখন শুধুই চিটা, কিষাণের কপালে কম্পিত হাত কি খেয়ে বাঁচবে পরিবার? সামনেই ঈদ সন্তানের বায়না ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

  • কবিতা

    আকাশ ও ঘাসফুলের নীলের গল্প নোমান সাদিক   নীল ঘাসফুল ফোটে পথে পথে বাঁকে তবু আকাশের দিকে মুখ করে রাখে লোকেরা দেখে না বলে পায়ে দলে যায় আহত শরীরে ফের সে উঠে দাঁড়ায়    তার কষ্টের কথা বাতাসেরা জানে সে কথা বললো গিয়ে আকাশের কানে আকাশ পাঠালো চিঠি " ঘাসফুল ভাই তোমার জন্য কিছু করে যেতে চাই, রঙধনু মই বেয়ে এইখানে ওঠো আমার বুকেই তুমি তারা হয়ে ফোটো"   ঘাসফুল বলে -" ভাই, আমি যাবো না, ঘাসেই ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

  • কবিতা

    জীবন একটা  এ কে আজাদ   জ্বলছে আগুন বুকের মাঝে  জ্বলুক শত জ্বলাতে কঠিন হৃদয় গলাতে, শক্ত মাঠে চাষ করে ফের নতুন ফসল ফলাতে।   অগ্নি-জ্বলা মশাল হাতে  সামনে গতির চলা চাই সত্য সুন্দর বলা চাই ন্যায়ের পথে দৃঢ়চেতা  উচ্চকণ্ঠ গলা চাই।   বাঁচার মতো বাঁচতে হলে  নিজের হাতে শক্তি চাই আপন কাজে ভক্তি চাই বন্ধু স্বজন সবার মাঝে যোগ্য সাথী যোক্ত...চাই।   বুকের মাঝে টগবগে ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

  • কবিতা

          শিশুর পণ গোলাম মোস্তফা   এই করিনু পণ মোরা এই করিনু পণ ফুলের মতো গড়ব মোরা মোদের এই জীবন।   হাসব মোরা সহজ সুখে গন্ধ রবে লুকিয়ে বুকে মোদের কাছে এলে সবার জুড়িয়ে যাবে মন।   নদী যেমন দুই কূলে তার বিলিয়ে চলে জল, ফুটিয়ে তোলে সবার তরে শস্য, ফুল ও ফল।   তেমনি করে মোরাও সবে পরের ভালো করব ভবে মোদের সেবায় উঠবে হেসে এই ধরণীতল।   সূর্য যেমন নিখিল ধরায় করে কিরণ দান, আঁধার দূরে ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

  • কবিতা

    যেতে হবে গন্তব্যে মুহাম্মদ রেজাউল করিম   ক্লান্তির ছায়া ঠেলে হেঁটে যাই আমি সামনে জেগে ওঠে পর্বত গিরি  যেতে হবে বহুদূর যতোক্ষণ না জাগে নতুন ভোর যদি জেগে ওঠে আঁধার রাত জ¦ালাতে হবে তাঁর আলো ভাঙতে হবে পর্বত গিরি সামনের পথেই এগুতে হবে মনযিল আর কতদূর  যেতে হবে বহুদূর  হে প্রভু আলো দাও পথ দেখাও  যেতে হবে গন্তব্যে নইলে তো সুখ নেই ॥     প্রিয়পাখি সুখে থাকো শাহ আলম ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

  • আল মাহমুদের শিশুতোষ বই ‘বাতাসের নূপুর’

    আল মাহমুদের শিশুতোষ বই ‘বাতাসের নূপুর’

    হুসাইন দিলাওয়ার: গ্লোবের পেটে কান লাগিয়ে খোকন শুনে কান্না বিশ্ব গোলক ফুঁপিয়ে ওঠে আর পারি না, আর না।  মানুষ ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

  • কবিতা

    স্বর্ণালী সকালবেলা হেলাল আনওয়ার   অস্থির সময় নিয়ে চলেছি আমি বুনো মশকের মতো ভন ভন করে নিপীড়িত স্বপ্নগুলো।   কোথায় আর যাবো বলো- অতলান্ত সাগর ছুঁয়ে বসে আছি বহুকাল মাঝিরাও চলে গেছে যে যার মতো দুচোখ এখন ধুয়াশার চাদরে আচ্ছন্ন।   এখন স্বপ্নহীন জীবন এখন রংহীন সময় বুকের তাকত-ঝড়ে নূয়ে পড়া বৃক্ষের মতো চারপাশ ডাস্টবিন,কুত্তারা ছিঁড়ে খায় রুটির মতো   তাজা তাজা স্বপ্নের ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

  • কবিতা

    আয়রে আমার ছেলেবেলা শামীম খান যুবরাজ   আয়রে আমার ছেলেবেলা কোথায় গেলি তুই? আয় না তোরে হাত বাড়িয়ে একটুখানি ছুঁই।   আয়রে আমার খেলার সাথি দল বাঁধি সব মিলে, আয় না আবার ছুটে যাব শাপলা ভরা ঝিলে।   আয়রে আমার লাটিম-লাটাই আয়রে আমার ঘুড়ি, আয়রে আমার মাছরাঙা-বক সঙ্গে তোদের উড়ি।   আয়রে আমার ডাংগুলি-বল কোথায় আমার জাল, কোথায় গেল মাছে ভরা বাড়ি পাশের খাল?   কোথায় আমার ছেলেবেলা আয় না ছুটে ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

  • কবিতা

    দেশের জন্য সৈয়দ আলী আহসান   কখনও আকাশ     যেখানে অনেক হাশিখুশি ভরা তারা, কখনও সাগর যেখানে স্রোতের তরঙ্গ দিশাহারা।   কখনও পাহাড় যেখানে পাথর চিরদিন জেগে থাকে, কখনও-বা মাঠ যেখানে ফসল সবুজের ঢেউ আঁকে।   কখনও-বা পাখি শব্দ ছড়ায় গাছের পাতায় ডালে- যেসব শব্দ অনেক শুনেছে কোনও এক দূর কালে।   সব কিছু নিয়ে আমাদের দেশ একটি সোনার ছবি যে দেশের কথা কবিতা ও গানে লিখেছে অনেক ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

  • কবিতা

    আমি চিনতে পারিনি হেলাল আনওয়ার   আলোর বিপরীতে চলতে চলতে আমি বড় ক্লান্ত এখন অন্ধকার আমাকে নিয়ে যায় উত্তাপহীন সময়ের কাছে।   ইদানিং সব কিছুই অচেনা মনে হয় আত্মার অতিথি, যাকে বড় ভালোবাসি চেনা পথ, সবুজের সমারোহ, কাশফুল।  যে পথে চলেছি আমি সে পথ বড় বন্ধুর।   যাকে ভালোবাসি অমোঘ আবেগে সেও ভাবে অপাঙ্ক্তেয় কবিতার চরণ।  হে বিমলা, স্বর্গীয় গেলেমান। তোমাকে পেয়েছি বলে, ভুলের ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

  • কবিতা

    চারটি ইশারা আবদুল হালীম খাঁ   ॥ এক॥ কী মধুর সংগীতময় ছন্দায়িত তোমার নাম আমি পৃথিবীতে প্রথম পা দিয়েই শুনেছিলাম। ॥ দুই॥ নক্ষত্রের ধূলি উড়িয়ে সে এলো তখন বিকেল যায় যায়। নীলিমায় আঁকলো কী প্রেমপত্র বুঝা হলো বড় দায়। ॥ তিন॥ দেখিনি তোমায় শুধু তোমার প্রেমে দিনরাত আছি মেতে, বলো বলো কোনদিন তুমি অধিকার দেবে তোমারও ঘরে যেতে! ॥ চার॥ নির্জনতার ভেতর যে এতো কোলাহল আগে বুঝিনি। তখন বুঝার ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ