বৃহস্পতিবার ১৩ আগস্ট ২০২০
Online Edition
  • চলতি অর্থবছরে বাণিজ্য ঘাটতি বাড়ালো এক লাখ কোটি টাকা

    স্টাফ রিপোর্টার : রফতানি আয়ের নিম্নগতির প্রভাবে বৈদেশিক বাণিজ্যে বড় ঘাটতিতে পড়েছে বাংলাদেশ। চলতি ২০১৯-২০ অর্থবছরের প্রথম নয় মাসে (জুলাই-মার্চ) বহির্বিশ্বের সঙ্গে বাণিজ্য ঘাটতি দাঁড়িয়েছে এক হাজার ২০৭  কোটি ৮০ লাখ মার্কিন ডলার; যা বাংলাদেশি মুদ্রায় এক লাখ দুই হাজার ৬৬৩ কোটি টাকা। কেন্দ্রীয় ব্যাংকের করা হালনাগাদ প্রতিবেদনে এ তথ্য জানা গেছে।সংশ্লিষ্টরা বলছেন, রফতানি আয় কমায় বহির্বিশ্বের সঙ্গে বাড়ছে বাণিজ্য ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

  • গত তিন মাসে রফতানি আয় কমেছে ৪৪৮ কোটি ডলার

    স্টাফ রিপোর্টার: পোশাক রফতানি খাতের গতি ফেরেনি। চলতি অর্থবছরের মার্চ থেকে মে তিন মাসে গত বছরের একই সময়ের তুলনায় প্রায় ৫৫ শতাংশ রফতানি কমেছে। অর্থাৎ এ সময়ে তৈরি পোশাকের রফতানি আয় কমেছে ৪৪৮ কোটি ডলার। চলতি বছরের মার্চ থেকে মে পর্যন্ত তিন মাসে পোশাক রফতানি ৫০০ কোটি ডলার হ্রাস পাওয়ার আশঙ্কা প্রকাশ করেছিল পোশাক শিল্প মালিক সংগঠন বিজিএমইএ। সেই আশঙ্কা প্রায় পুরোটাই বাস্তবে রূপ ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

  • চাইল্ড এন্ড ওল্ড এইজ কেয়ারকে আর্থিক অনুদান দিলো আরএফএল গ্যাস স্টোভ

    চাইল্ড এন্ড ওল্ড এইজ কেয়ারকে আর্থিক অনুদান দিলো আরএফএল গ্যাস স্টোভ

    দেশের জনপ্রিয় গ্যাসের চুলার ব্রান্ড আরএফএল গ্যাস স্টোভ ‘ক্ষুধা না চুলা জ্বলুক’ কর্মসূচীর অধীনে ঢাকার চাইল্ড ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

  • জাতীয় হৃদরোগ ইনস্টিটিউট ও হাসপাতালকে ডাস্টবিন দিলো সেরা ওয়াটার ট্যাঙ্ক

    জাতীয় হৃদরোগ ইনস্টিটিউট ও হাসপাতালকে ডাস্টবিন দিলো সেরা ওয়াটার ট্যাঙ্ক

    আরএফএল গ্রুপের জনপ্রিয় ওয়াটার ট্যাংক ব্র্যান্ড ‘সেরা’ জাতীয় হৃদরোগ ইনস্টিটিউট ও হাসপাতালকে ডাস্টবিন ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

  • করোনায় ই-কমার্স খাতে প্রতি মাসে ক্ষতি ৬৬৬ কোটি টাকা

    স্টাফ রিপোর্টার : করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধে প্রায় দেড় মাস ধরে দেশে লকডাউন অবস্থা বিরাজ করেছে। তাই ই-কমার্স খাতের প্রায় ৯০ শতাংশ প্রতিষ্ঠান তাদের কার্যক্রম পরিচালনা করতে পারছে না। ফলে করোনার প্রভাবে এ খাতে প্রতিমাসে ক্ষতির পরিমাণ ৬৬৬ কোটি টাকা দাঁড়িয়েছে।করোনাভাইরাস সংক্রমণজনিত সাধারণ ছুটিকালীন জনসাধারণকে সহযোগিতা করতে গতকাল বুধবার বাণিজ্য মন্ত্রণালয় ও ই-ক্যাবের ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

  • করোনায় পাদুকা শিল্পের ৫০ কোটি টাকার ক্ষতি

    স্টাফ রিপোর্টার : গুণগত  মানসম্পন্ন এবং দাম তুলনামূলক কম হওয়ায় দেশীয় কারখানায় তৈরি জুতার খ্যাতি ও চাহিদা রয়েছে । ঈদ কিংবা পূজায় এ চাহিদা আরও বেড়ে যা।  উৎসবের সময়গুলোতে পাদুকা শ্রমিকদের দম ফেলারও ফুরসত থাকে না। রাত-দিন কাজ করে পাইকারদের চাহিদা অনুযায়ী জুতা তৈরি করেন তারা। তবে এবারের চিত্র ভিন্ন।কদিন পরেই পবিত্র ঈদুল ফিতর। এই ঈদে লাভের বিপরীতে লোকসানের পাল্লাই ভারি হচ্ছে ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

  • করোনা: ঈদে কেনাকাটার বড় ভরসা অনলাইন শপিং

    স্টাফ রিপোর্টার: করোনা ভাইরাসের সংকটকালে বাইরে বের হলেই সংক্রমণের আশঙ্কা। এই আশঙ্কার মাঝেই চলে এসেছে ঈদ। এবারের ঈদে বেশির ভাগ শপিং মল বন্ধ থাকছে। তবে বড় বড় ফ্যাশন হাউজগুলো তাদের অনলাইন শপ চালু রাখছে। দেশের ই-কমার্স, মার্কেটপ্লেস প্রতিষ্ঠানগুলোও ঈদকে সামনে রেখে বড় আয়োজনের প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছে বলে জানা গেছে।কোনও কোনও ই-কমার্স প্রতিষ্ঠান ক্রেতাদের পণ্য ক্রয়ের বিপরীতে নগদ ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

  • দুঃসময়ে বাংলাদেশের পাশে থাকার আশ্বাস ইউরোপীয় ইউনিয়নের

    দুঃসময়ে বাংলাদেশের পাশে থাকার আশ্বাস ইউরোপীয় ইউনিয়নের

    স্টাফ রিপোর্টার : কোভিড-১৯ মহামারির এই দুঃসময়ে বাংলাদেশের পাশে থাকার আশ্বাস দিয়েছে ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ)। ঢাকায় ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

  • এবার অস্তিরতা মসলার বাজারে

    এবার অস্তিরতা মসলার বাজারে

    স্টাফ রিপোর্টারঃ আসন্ন   ঈদুল ফিতরকে সামনে রেখে অস্তিরতা দেশের মসলার বাজার। বাজার নিয়ন্ত্রণে এবার মাঠে ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

  • করোনার প্রভাবে এপ্রিলে পোশাক রফতানি কমেছে ৮৫ শতাংশ

    স্টাফ রিপোর্টার: মহামারি করোনা ভাইরাসের কারণে সারাবিশ্বই অচল। সবকিছু থেমে যাওয়ার এই সময়ে বিশ্ব অর্থনীতির ওপর বিরূপ প্রভাব পড়েছে। বাংলাদেশেও তৈরি পোশাক শিল্পের ওপর প্রভাব পড়েছে। ইতোমধ্যে ক্রেতারা অনেক ক্রয়াদেশ বাতিল করে দিয়েছেন।ফলে শুধু গত এপ্রিল মাসে বাংলাদেশের পোশাক রফতানি হয় মাত্র ৩৬ কোটি ৬৫ লাখ ডলারের, যা আগের বছরের এই মাসের তুলনায় ৮৪ দশমিক ৮৬ শতাংশ কম। গত বছরের ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

  • ৮ বিলিয়ন ডলারের রফতানি আদেশ বাতিল

    নতুন অর্ডার পেলে সব কারখানা খুলে দেয়ার পরিকল্পনা

    স্টাফ রিপোর্টার: স্বাস্থ্যবিধি মেনে সীমিত আকারে খোলা হয়েছে তৈরি পোশাক কারখানা। পর্যায়ক্রমে সব কারখানা খুলে দেয়া হবে। বিদেশী ক্রেতারা ৮ বিলিয়ন ডলারের রফতানি আদেশ বাতিল করলেও এখনও ৪ বিলিয়ন ডলারের ক্রয়াদেশ রয়েছে। বিজিএমইএ ও বিকেএমইএ বলছে আরও নতুন অর্ডার আসতে পারে। এতে করে সব কারখানা খুলে দেয়া লাগতে পারে বলে মনে করছেন তারা।তৈরি পোশাকের রফতানি আদেশ (অর্ডার) ধরে রাখতে ... ...

    বিস্তারিত দেখুন

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ