শুক্রবার ০২ ডিসেম্বর ২০২২
Online Edition

দেশে সদ্যজাত এক হাজার শিশুর মধ্যে ৩২ জনের মৃত্যু হয় ------------স্বাস্থ্যমন্ত্রী

 

স্টাফ রিপোর্টার: স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেছেন, নবজাতকের জন্য বিশেষ সেবা ইউনিট চালুর মাধ্যমে শিশু মৃত্যু কমিয়ে এসডিজির লক্ষ্য অর্জনে চেষ্টা চালানো হচ্ছে। দেশে সদ্যজাত প্রতি এক হাজার শিশুর মধ্যে ৩২টির মৃত্যু হয়। এসডিজির লক্ষ্য অর্জন করতে হলে এই সংখ্যা ১২টিতে নামিয়ে আনতে হবে।   

গতকাল শনিবার মানিকগঞ্জে ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট সদর হাসপাতালের পুরনো ভবনে নবজাতক শিশুর জন্য বিশেষ সেবা ইউনিটের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন তিনি। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন স্বাস্থ্য সেবা বিভাগের সচিব মু. আনোয়ার হোসেন হাওলাদার, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক আবুল বাসার মোহাম্মদ খুরশীদ আলম, মহাপরিচালক (এমসিটিবি) প্রফেসর ডা. শাকিল আহম্মেদ, মানিকগঞ্জের কর্নেল মালেক মেডিক্যাল কলেজের অধ্যক্ষ মো. জাকির হোসেন ও সিভিল সার্জন মোয়োজ্জেম আলী খান চৌধুরী প্রমুখ।

 

স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, নির্ধারিত সময়ের আগে ভূমিষ্ঠ হওয়া এবং বিভিন্ন রোগ ও অল্প ওজন নিয়ে জন্ম নেয়া শিশুদের পরিচর্যায় হাসপাতালে বিশেষ একটি ব্যবস্থা দরকার হয়। আর সেই ব্যবস্থাই হলো নবজাতক শিশুর বিশেষ সেবা ইউনিট (স্ক্যানু)। এখানে কিছুদিন রেখে প্রয়োজনীয় চিকিৎসা সেবা দেয়া হয়। এর মাধ্যমে শিশুটির জীবন রক্ষা পায়। জাহিদ মালেক বলেন, দেশে সদ্যজাত প্রতি এক হাজার শিশুর মধ্যে ৩২টির মৃত্যু হয়। এসডিজির লক্ষ্য অর্জন করতে হলে এই সংখ্যা ১২টিতে নামিয়ে আনতে হবে। সেই লক্ষ্যে মানিকগঞ্জে নবজাতক শিশুর বিশেষ সেবা ইউনিট (স্ক্যানু) স্থাপন করা হয়েছে। ইতোমধ্যে দেশের ৫০টি হাসপপাতালে স্ক্যানু স্থাপন করা হয়েছে। পর্যায়ক্রমে প্রতিটি জেলা হাসপাতালে এটি স্থাপন করা হবে। এর মাধ্যমে শিশু মৃত্যুর হার কমে আসবে এবং আমাদের এসডিজি অর্জন সহজ হবে।

মায়েদের উদ্দেশ করে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, সদ্যজাত দুর্বল ও অসুস্থ শিশুকে দ্রুত স্ক্যানুতে নিয়ে আসুন। তাহলে শিশুটির সুচিকিৎসা হবে এবং জীবন রক্ষা পাবে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ