ঢাকা, রোববার 17 October 2021, ১ কার্তিক ১৪২৮, ৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩ হিজরী
Online Edition

সিরাজুদ্দিন হাক্কানির সঙ্গে জাতিসংঘ দূতের বৈঠক

সংগ্রাম অনলাইন ডেস্ক: যুক্তরাষ্ট্রের মোস্ট ওয়ান্টেড সন্ত্রাসী তালিকায় থাকা নতুন আফগান তালেবান স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সিরাজুদ্দিন হাক্কানির সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছেন জাতিসংঘ দূত ডেবোরাহ লায়ন্স।

বৃহস্পতিবার তালেবানের মুখপাত্র সুহাইল শাহীন টুইটারে এক বিবৃতিতে জানান, আফগান জনগণের জন্য মানবিক সহায়তা দেওয়া নিয়ে কাবুলে নিযুক্ত জাতিসংঘ মিশনের প্রধান ডেবোরাহ লায়ন্সের সঙ্গে সিরাজউদ্দিন হাক্কানির বৈঠক হয়েছে।

শাহীন বলেন, “বৈঠকে জাতিসংঘ দূতকে আশ্বাস দিয়ে হাক্কানি বলেছেন, কোনও প্রতিবন্ধকতা ছাড়াই জাতিসংঘ কর্মীরা আফগান জনগণকে জরুরি সাহায্য সরবরাহের কাজ করতে পারবে।”

দারিদ্র এবং খরার মধ্য দিয়ে যাওয়া আফগানিস্তানে তালেবান গতমাসে ক্ষমতা দখলের পর পরিস্থিতির আরও অবনতি হয়েছে। সাহায্য সরবরাহ বিঘ্নিত হয়েছে। বহু আফগান এবং ত্রাণকর্মী আফগানিস্তান ছেড়ে চলে গেছে এবং অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ড অনেকাংশেই মুখ থুবড়ে পড়েছে।

এ সপ্তাহে মানবিক ত্রাণ বিষয়ক এক আন্তর্জাতিক সম্মেলনে জাতিসংঘ মহাসচিব অ্যান্তোনিও গুতেরেস বলেছিলেন, আফগানিস্তান সম্ভবত এখন সবচেয়ে বিপজ্জনক অবস্থার মধ্য দিয়ে যাচ্ছে।

এরপর বুধবার জাতিসংঘ দূত লায়ন্স আফগান স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী হাক্কানির সঙ্গে বৈঠকে “সব জাতিসংঘ এবং মানবিক ত্রাণকর্মীর জন্য আফগানিস্তানে কোনওরকম ভয়ভীতি এবং বাধা ছাড়া মানুষজনকে গুরুত্বপূর্ণ সাহায্য সামগ্রী সরবরাহ করা এবং মানুষের জন্য পুরোদমে কাজ করতে পারার প্রয়োজনীয়তার ওপর গুরুত্বারোপ” করেছেন।

আফগানিস্তানে দুই দশকের দীর্ঘ মার্কিন নেতৃত্বাধীন ‍যুদ্ধ চলার সময় তালেবান বারবারই জাতিসংঘ কর্মীদের হামলার নিশানা করে এসেছে। জাতিসংঘ কর্মী হত্যার বড় ধরনের রক্তক্ষয়ী ঘটনা ঘটে ২০০৯ সালে। সে সময়য় কাবুলে একটি অতিথিশালায় তালেবান জঙ্গিরা জাতিসংঘের ৫ বিদেশি কর্মীকে হত্যা করে।

আর সাম্প্রতিক সময়ে গত জুলাইয়ে হেরাত এর জাতিসংঘ কম্পাউন্ডে বন্দুকধারীরা হামলা চালায়। তাদের রকেট-চালিত গ্রেনেড হামলায় নিহত হন কম্পাউন্ডের এক প্রহরী। এছাড়া, ২০১১ সালে মাজার-ই-শরিফে বিক্ষোভকারীরা ৭ জাতিসংঘ কর্মীকে হত্যা করে।

গত কয়েক বছরে তালেবান জঙ্গি তৎপরতায় আফগানিস্তানে যে কয়টি বড় ধরনের হামলা হয়েছে, তার জন্য হাক্কানি নেটওয়ার্ককেই দায়ী করা হয়। এই হাক্কানি নেটওয়ার্ক যুক্তরাষ্ট্রের সন্ত্রাসের কালো তালিকাভুক্ত। আফগান কর্মকর্তাদের হত্যা, বিদেশি সৈন্যদের অপহরণের অভিযোগও রয়েছে এই দলটির বিরুদ্ধে।

এই হাক্কানি নেটওয়ার্কের প্রতিষ্ঠাতার ছেলে এবং নেটওয়ার্কটির প্রধান সিরাজুদ্দিন হাক্কানিই এখন আফগানিস্তানের নতুন অন্তর্বর্তী তালেবান সরকারের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী হয়েছেন।তার নাম এখনও মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থা এফবিআইয়ের মোস্ট ওয়ান্টেড সন্ত্রাসীদের তালিকায় রয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রে হাক্কানির মাথার দাম ৫০ লাখ ডলার।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ