ঢাকা, মঙ্গলবার 28 September 2021, ১৩ আশ্বিন ১৪২৮, ২০ সফর ১৪৪৩ হিজরী
Online Edition

মোল্লা বারাদারের মৃত্যুর গুঞ্জন সঠিক নয়: তালেবান

সংগ্রাম অনলাইন ডেস্ক: তালেবানের অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা ও বর্তমান আফগানিস্তান সরকারের উপ-প্রধানমন্ত্রী মোল্লা আব্দুল গনি বারাদারের মৃত্যুর খবর অস্বীকার করেছে গোষ্ঠীটি। গতকাল সোমবার সোশ্যাল মিডিয়ায় বিশেষ করে ভারতে তার মৃত্যুর গুজব ব্যাপকভাবে ছড়িয়ে পড়েছিল। এতে বলা হয়, কাবুলের প্রেসিডেন্ট প্যালেসে তালেবানের মধ্যকার গ্রুপগুলোর বন্দুকযুদ্ধে তিনি মারাত্মক আহত হয়েছেন। পরে তার মৃত্যু হয়।

তবে আজ মঙ্গলবার বার্তা সংস্থা রয়টার্সের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, তালেবানের মুখপাত্র সুলাইল শাহিন এক অডিও বার্তায় মোল্লা আব্দুল গনি বারাদার আহত ও তার মৃত্যুর খবর অস্বীকার করেছেন।

তালেবান মুখপাত্র সুলাইল শাহীন জানিয়েছেন, মোল্লা আবদুল গনি বারাদার একটি ভয়েস ম্যাসেজে এক সংঘর্ষে তার নিহত বা আহত হওয়ার দাবি প্রত্যাখ্যান করেছেন।

“তিনি বলেছেন এটি মিথ্যা এবং পুরোপুরি ভিত্তিহীন,” এক টুইটার বার্তায় বলেছেন শাহীন।

তালেবান একটি ভিডিও ফুটেজও প্রকাশ করেছে, সেটিতে আফগানিস্তানের দক্ষিণাঞ্চলীয় শহর কান্দাহারে এক বৈঠকে বারাদারকে দেখানো হয়েছে। তবে তাৎক্ষণিকভাবে এই ফুটেজটি যাচাই করে দেখতে পারেনি রয়টার্স।

মোল্লা বারাদার তালেবানের রাজনৈতিক দপ্তরের সাবেক প্রধান এবং গত সপ্তাহে ঘোষিত সরকারের উপপ্রধানমন্ত্রী হিসেবে তার নাম ঘোষণা করা হয়েছে।   

বারাদারের সমর্থকদের সঙ্গে হাক্কানি নেটওয়ার্কের প্রধান সিরাজুদ্দিন হাক্কানির সমর্থকদের সংঘর্ষ হয়েছে বলে কয়েকদিন ধরেই গুজব ছড়াচ্ছিল। পাকিস্তান সীমান্ত সংলগ্ন আফগানিস্তানের এলাকাগুলো ভিত্তিক হাক্কানি নেটওয়ার্ককে যুদ্ধ চলাকালে সবচেয়ে ভয়াবহ কিছু আত্মঘাতী হামলার জন্য দায়ী করা হয়। 

হাক্কানিদের মতো সামরিক কমান্ডারদের সঙ্গে বারাদারের মতো দোহার রাজনৈতিক দপ্তরভিত্তিক নেতাদের সম্ভাব্য প্রতিদ্বন্দ্বিতার জল্পনাকে কেন্দ্র করে বিভিন্ন ধরনের গুজব ছড়াতে শুরু করে। যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে সমঝোতায় পৌঁছতে তালেবানের কূটনৈতিক প্রচেষ্টায় বারাদার নেতৃত্ব দিয়েছিলেন।

অভ্যন্তরীণ বিভক্তি নিয়ে এসব জল্পনা বরাবর অস্বীকার করে এসেছে তালেবান।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ