রবিবার ১৭ অক্টোবর ২০২১
Online Edition

আফগান সরকারের অ্যাকাউন্ট বন্ধ করল গুগল

৪ সেপ্টেম্বর, রয়টার্স: আফগানিস্তানের সাবেক সরকারের গুগল অ্যাকাউন্টে প্রবেশের চেষ্টা করেছিল তালেবান। এজন্য বেশ কয়েকটি অ্যাকাউন্ট সামরিকভাবে বন্ধ করে দিয়েছে গুগল। শনিবার একটি আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমের প্রতিবেদনে এ তথ্য জানা গেছে। গুগল গত শুক্রবার জানিয়ছে, সংশ্লিষ্ট অ্যাকাউন্টগুলো নিরাপদে রাখতে সাময়িক পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। তবে এসব অ্যাকাউন্ট পুরোপুরি বন্ধ করা হয়নি।

গুগলের এক মুখপাত্র একটি বিবৃতিতে জানিয়েছেন, আমরা আফগানিস্তানের পরিস্থিতির ওপর নজন রাখছি। আমরা সংশ্লিষ্ট অ্যাকাউন্ট নিরাপদে রাখতে সাময়িক পদক্ষেপ নিয়েছি। তবে এসব অ্যাকাউন্ট থেকে তথ্য নিয়ে সাবেক সরকারি কর্মকর্তাদের যদি কোনো ক্ষতির আশঙ্কা থাকে তাহলে যেসব অ্যাকাউন্ট পুরোপুরি বন্ধ করে দেওয়া হতে পারে বলে ওই প্রতিবেদনে জানা গেছে। 

সাবেক আফগান সরকারের অর্থ, শিল্প, শিক্ষা ও খনি মন্ত্রণালয়ের প্রায় দুই ডজন কর্মকর্তা অফিশিয়াল যোগাযোগের জন্য গুগল অ্যাকাউন্ট ব্যবহার করতেন বলে জানা গেছে। স্থানীয় সরকার ও প্রেসিডেন্টের প্রটোকল অফিসও গুগলের মাধ্যমেই অফিশিয়াল যোগাযোগ রক্ষা করত। এ ব্যাপারে সাবেক আফগান সরকারের এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন, জুলাই মাসের শেষের দিকে তিনি যে মন্ত্রণালয়ে কাজ করতেন সেখানকার তথ্য সেভ করে রাখতে বলেছিল তালেবান, যেন তারা পরবর্তীতে সহেজেই অ্যাকাউন্টে প্রবেশ করতে পারেন। তবে তালেবানের সেই অনুরোধ রক্ষা করেননি তিনি। বর্তমানে তালেবানের ভয়ে তিনি পালিয়ে বেড়াচ্ছেন বলে বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে জানিয়েছেন। শুধু ওই কর্মকর্তাই নন, তালেবান কাবুল দখলের পর সরকারি চাকরিজীবী, আন্দোলনকর্মীসহ ঝুঁকিতে থাকা বহু আফগান নাগরিক ভয়ে পালিয়ে রয়েছেন।

যদিও দ্বিতীয় দফায় ক্ষমতা দখলের পর আগের কঠোর রক্ষণশীল মনোভাব থেকে সরে এসেছে বলে দাবি করে আসছে তালেবান। এমনকি আফগানিস্তানে সাধারণ ক্ষমাও ঘোষণা করেছে তারা। প্রতিবেদন অনুযায়ী সরকারের ডাটাবেস আর ইমেইলে ঢুকতে পারলে সাবেক প্রশাসনের মন্ত্রী, সরকারি ঠিকাদার, উপজাতীয় মিত্র এবং বিদেশী অংশীদারদের তথ্য বের হয়ে আসতে পারে। এ ব্যাপারে ইন্টারনেট ইন্টিলিজেন্স প্রতিষ্ঠান ডোমেইনটুলসের নিরাপত্তা গবেষক চ্যাড অ্যান্ডারসন জানান, এটা আসলে তথ্যের সম্পদ হাতে তুলে দেওয়ার মতো ব্যাপার। তালেবান সাবেক সরকারের কর্মীদের খুঁজছে এই প্রতিবেদনের জের টেনে তিনি বলেন, শুধু গুগল শিটে থাকা একটি কর্মী তালিকাই অনেক বড় একটি সমস্যা হয়ে দেখা দিতে পারে। 

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ