ঢাকা, বুধবার 27 October 2021, ১১ কার্তিক ১৪২৮, ১৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩ হিজরী
Online Edition

মায়ামিতে ভবন ধসে ৯৯ জন নিখোঁজ, ১০২ জনকে উদ্ধার

সংগ্রাম অনলাইন ডেস্ক: ফ্লোরিডার মায়ামিতে সার্ফসাইড শহরে বহুতল ভবনের একাংশ ধসের ঘটনায় এখনও ৯৯ জনের খোঁজ মেলেনি বলে জানিয়েছে মায়ামি-ডেইড পুলিশ বিভাগের মুখপাত্র আলভারো জাবালেতা।

সিএনএন জানিয়েছে, চ্যামপ্লেইন টাওয়ার্স সাউদ নামের বহুতল ভবনটির একটি অংশ ধসের ঘটনায় এখন পর্যন্ত এক নারী মারা গেছে এবং ১০২ জনকে উদ্ধার করা হয়েছে।

ভবনটি ধসের সময় তার ভেতরে ঠিক কতজন ছিলেন তা এখনও জানা যায়নি। উদ্ধারকর্মীরা ধ্বংসস্তুপে জীবিতদের সন্ধানে উদ্ধারকাজ চালিয়ে যাচ্ছে।

সার্ফসাইডের কমিশনার টার্লস কেসল্ বলেন, আংশিক ধসে পড়া ভবনের ধ্বংসাবশেষ থেকে আরও মানুষকে উদ্ধার করার আশা করছেন তারা।

“বাস্তবতা হল, আমি নিশ্চিত নই কতজন অথবা আদৌ জীবিত কাউকে খুঁজে পাওয়া যাবে কিনা,” বলেন তিনি।

১৩০ ইউনিটের ওই কমপ্লেক্সের অর্ধেকটা হঠাৎ ধসে পড়ার কারণ এখনও জানা যায়নি। এই কমপ্লেক্সটি ১৯৮০ সালে নির্মাণ করা হয়।

বিবিসি জানিয়েছে, যুক্তরাষ্ট্রে দক্ষিণ আমেরিকার বিভিন্ন দেশের কনসুলেট থেকে জানানো হয়েছে তাদের বেশ কয়েকজন নাগরিকের খোঁজ মিলছে না।

প্যারাগুয়ের কর্মকর্তারা জানান, নিখোঁজদের মধ্যে সেদেশের ফার্স্ট লেডির কয়েকজন স্বজনও আছেন। উদ্ধারকর্মীরা ফার্স্ট লেডি সিলভানা লোপেজ মোরেইরার বোন-ভগ্নিপতি, তাদের তিন সন্তান ও কাজের লোকের সঙ্গে যোগাযোগ করতে পারেনি।

সার্ফসাইডের মেয়র চার্লস ব্রুকেট বৃহস্পতিবার সকালে বলেন, “দুর্ঘটনার প্রায় ২১ ঘণ্টা পার হতে চললো, তারপরেও আমি আশাবাদী উদ্ধারকাজে নিয়োজিতরা ধ্বংসস্তুপে আটকে পড়াদের জীবিত উদ্ধার করতে পারবে।”

তিনি জানান, বৃষ্টির কারণে উদ্ধার কাজ ব্যাহত হলেও কর্তৃপক্ষ কাজ বন্ধ করবে না।

মেয়র ব্রুকেট আরও বলেন, ভবন ধসের কারণ নিয়ে জল্পনা বা তদন্ত নিয়ে কথা বলার সময় এখন নয় কারণ কর্তৃপক্ষ আপাতত সব মনোযোগ দিয়েছে উদ্ধারকাজে।

ফ্লোরিডা ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির ইনস্টিটিউট অব এনভায়রনমেন্টের একজন অধ্যাপক শিমন উডোভিনস্কি সিএনএনকে জানিয়েছেন, গত বছর তিনি একটি গবেষণায় দেখিয়েছিলেন চ্যামপ্লেইন টাওয়ারস সাউদ কনডো ১৯৯০ এর দশক থেকে দেবে যাওয়ার ইঙ্গিত দিয়ে আসছে।

তার গবেষণায় দেখা গেছে, বহুতল ভবনটি ১৯৯৩ থেকে ১৯৯৯ সাল পর্যন্ত বছরে দুই মিলিমিটার করে দেবেছে।

তবে অধ্যাপক উডোভিনস্কি জানান, শুধু দেবে যাওয়ার কারণে এভাবে ভবন ধসে যেতে পারে না, এটা একটি প্রভাবক হিসেবে কাজ করতে পারে।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন জানিয়েছেন, তিনি ফ্লোরিডার গভর্নর রন ডিস্যানটিসের জরুরি অবস্থা ঘোষণার অপেক্ষায় আছেন এবং ফেডারেল ইমারজেন্সি ম্যানেজমেন্ট এজেন্সির (ফেমা) কর্মীরা এরইমধ্যে ঘটনাস্থলে পৌঁছেছে।

 

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ