সোমবার ২৯ নবেম্বর ২০২১
Online Edition

আইপিও অনুমোদন আইপিডিসির

স্টাফ রিপোর্টার: বন্ড ইস্যুর মাধ্যমে পুঁজিবাজার থেকে ১৫০ কোটি টাকা উত্তোলন করবে ইন্ডাস্ট্রিয়াল প্রমোশন ডেভেলপমেন্ট কোম্পানি ফাইন্যান্স লিমিটেড (আইপিডিসি)। এদিকে ইউনিয়ন ইনস্যুরেন্স লিমিটেডকে প্রাথমিক গণপ্রস্তাবের (আইপিওর) অনুমোদন দেয়া হয়েছে।   দেশের প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) গতকাল বুধবার আইপিডিসি এ তথ্য প্রকাশ করা হয়েছে। একইদিনে পুঁজিবাজার নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) ইউনিয়ন ইনস্যুরেন্সের আইপিওর অনুমোদন দিয়েছে। ডিএসইর তথ্যে বলা হয়, ২০০৬ সালে তালিকাভুক্ত কোম্পানিটি নন-কনভার্টেবল আনসিকিউরড কুপন বিয়ারিং সাবঅর্ডিনেটেড বন্ড ইস্যু করে ১৫০ কোটি টাকা উত্তোলন করবে। বন্ডের মেয়াদ হবে ছয় বছর। প্রাইভেট প্লেসমেন্টে বন্ড ইস্যুর মাধ্যমে পুঁজিবাজার থেকে অর্থ উত্তোলন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে কোম্পানিটির পরিচালনা পর্ষদ। তবে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত দেবে বাংলাদেশ ব্যাংক এবং সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)। প্রতিষ্ঠান দুটির অনুমোদনের পর এই বন্ড ইস্যু করবে কোম্পানিটি।

কোম্পানির তথ্য মতে, সর্বশেষ ২০২০ সালে শেয়ারহোল্ডারদের জন্য নগদ ১২ শতাংশ লভ্যাংশ দেয়া হয়েছে। বর্তমানে শেয়ার সংখ্যা ৩৭ কোটি ১০ লাখ ৯১ হাজার ৫৪৭টি। এর মধ্যে উদ্যোক্তা পরিচালকদের হাতে রয়েছে ৪৮ দশমিক ৪ শতাংশ শেয়ার, প্রতিষ্ঠানিক বিনিয়োগকারীদের হাতে রয়েছে ১৭ দশমিক ২৯ শতাংশ শেয়ার, বিদেশি বিনিয়োগকারীদের হাতে রয়েছে ২ দশমিক ২৭ শতাংশ শেয়ার এবং সাধারণ বিনিয়োগকারীদের হাতে রয়েছে ১০ দশমিক ৫২ শতাংশ শেয়ার। এদিকে ইউনিয়ন ইনস্যুরেন্স লিমিটেডকে প্রাথমিক গণপ্রস্তাবের (আইপিওর) অনুমোদন দেয়া হয়েছে। গতকাল বিএসইসি কোম্পানিটির আইপিওর অনুমোদন দেয়। কোম্পানিটি ১০ টাকা অভিহিত মূল্যে এক কোটি ৯৩ লাখ ৬০ হাজার ৯০৪টি শেয়ার ইস্যুর মাধ্যমে ১৯ কোটি ৩৬ লাখ ৯ হাজার ৪০ টাকা উত্তোলন করবে। উত্তোলিত অর্থ দিয়ে ইউনিয়ন ইনস্যুরেন্স লিমিটেড ফিক্সড ডিপোজিট, পুঁজিবাজারে বিনিয়োগ, ফ্লোর কেনা ও আইপিওর খরচ বাবদ ব্যয় করবে। প্রসপেক্টাস অনুসারে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি আয় বা ইপিএস ৯৩ পয়সা। গত বছরের ৩০ সেপ্টেম্বর কোম্পানিটির নিট সম্পদ মূল্য (এনএভি) ছিল ১৬ টাকা ২ পয়সা (সম্পদ পুনঃমূল্যায়নসহ)। 

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ