শুক্রবার ২২ অক্টোবর ২০২১
Online Edition

বাংলাদেশে বিদেশী বিনিয়োগ কমেছে

স্টাফ রিপোর্টার: গত বছর (২০২০ সালে) সারা বিশ্বে সরাসরি বিদেশী বিনিয়োগ (এফডিআই) কমেছে আগের বছরের চেয়ে ৩৫ শতাংশ। পাশাপাশি একই সময়ে বাংলাদেশেও কমেছে প্রায় ১১ শতাংশ। করোনা মহামারির কারণে বিশ্বে এফডিআই বিপর্যয় হয়েছে।
গতকাল সোমবার বিশ্বব্যাপী প্রকাশিত জাতিসংঘের বাণিজ্য ও উন্নয়ন বিষয়ক সংস্থা আঙ্কটাডের সর্বশেষ বিশ্ব বিনিয়োগ রিপোর্টে এ পরিসংখ্যান রয়েছে। আঙ্কটাডের তথ্য অনুযায়ী, বাংলাদেশে গত বছর বিনিয়োগ এসেছে ২৫৬ কোটি ৪০ লাখ ডলার। বাংলাদেশি মুদ্রায় যার পরিমাণ ২১ হাজার ৮০০ কোটি টাকা। এর আগের বছর ২০১৯ সালে এফডিআই এসেছিল ২৮৭ কোটি ৪০ লাখ ডলার বা বর্তমান বিনিময় হার অনুযায়ী ২৪ হাজার ৪৩০ কোটি টাকা। বাংলাদেশে ২০২০ সাল শেষে মোট বিদেশী বিনিয়োগের স্থিতি ১ হাজার ৯৩৯ কোটি ডলার। যা এর আগের বছর শেষে ছিল ১ হাজার ৭৭৮ কোটি ডলার। আঙ্কটাডের প্রতিবেদন অনুযায়ী, সারাবিশ্বের দেশগুলো ২০২০ সালে এফডিআই পেয়েছে ১ লাখ কোটি ডলার। বাংলাদেশি মুদ্রায় যার পরিমাণ ৮৫ লাখ কোটি টাকা। ২০১৯ সালে বিশ্বে এফডিআই ছিল দেড় লাখ কোটি ডলার।
আঙ্কটাড মনে করে, এফডিআই প্রবাহ আগের অবস্থায় আসতে সময় লাগবে। কারণ  বিনিয়োগ প্রতিশ্রুতি এখনো দুর্বল। তৈরি পোশাক উৎপাদনে বিনিয়োগে আগ্রহ কম বলে মনে করছে আঙ্কটাড। ২০২০ সালে প্রায় ৩০০ কোটি ডলারের বিনিয়োগ বাতিল হয়েছে বাংলাদেশের। আঙ্কটাডের এই প্রতিবেদনে বলা হয়, গত বছর সারা বিশ্বে এফডিআই কমেছে আগের বছরের চেয়ে ৩৫ শতাংশ। গত বছর এফডিআইয়ের পরিমাণ ছিল এক ট্রিলিয়ন ডলার। ২০১৯ সালে যা ছিল দেড় ট্রিলিয়ন ডলার, যা ২০০৯ সালের অর্থনৈতিক সংকটে যে অবস্থা হয়েছিল, তার চেয়েও ২০ শতাংশ কম। গত বছর দক্ষিণ এশিয়ায় শুধু ভারত ছাড়া সব দেশের এফডিআই কমেছে। তবে চীন ও হংকংয়ের কারণে সার্বিকভাবে এশিয়াতে বিনিয়োগ আগের বছরের চেয়ে ৪ শতাংশ বেড়েছে। দক্ষিণ এশিয়ায় বেড়েছে ২০ শতাংশ। ভারতে এফডিআই বেড়েছে ২৭ শতাংশ।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ