বুধবার ২৮ জুলাই ২০২১
Online Edition

কবিতা

বৃষ্টি হলে ইচ্ছে করে 

কবির কাঞ্চন 

 

রিমঝিম রিমঝিম বৃষ্টি পড়ে

কী অপরূপ সুর

ইচ্ছে করে ভিজে ভিজে

যাই হারিয়ে দূর।

 

আকাশজুড়ে মেঘের ভেলা

গুড়–ম গুড়–ম ডাক

ইচ্ছে করে বেরিয়ে পড়ি

দরজা করে ফাঁক। 

 

মেঘের পরে মেঘ ছুটে যায় 

হাওয়ায় করে ভর

ইচ্ছে করে নাইতে নামি

ছেড়ে মনের ডর।

 

সূর্যিমামার লুকোচুরি 

চলে বিরামহীন 

ইচ্ছে করে লুকিয়ে থাকি

আজকে সারাদিন।

 

বৃষ্টি হলে স্বপ্ন আঁকে

আকুপাকু মন

ইচ্ছে করে নাচতে থাকি

আনন্দে তখন।

 

 

স্বাধীন ভূমির জন্য

শামীম শাহরিয়ার

 

একটি স্বাধীন ভূমির জন্য

লড়ছিল সব বীর,

ভিনদেশীদের কাছে নত

করব না আর শির।

 

স্বদেশ আমার মুক্ত হবে

যুক্ত হবে সুখ,

স্বপ্ন এমন করতে পূরণ

লড়ছিল সম্মুখ।

 

আমার মাটি মা যে আমার

তাই করি না ভয়,

ধ্বংস করে শত্রু ঘাঁটি

আনব চিনে জয়।

 

আঁধার মুছে দাও

শেখ বিপ্লব হোসেন

 

হয় না যাওয়া কত যে দিন

ফুলপাখিদের কাছে,

তাদের ছাড়া কেমন করে

হৃদয় বলো বাঁচে? 

 

শুয়ে বসে পড়ালেখা

ভাল্লাগে না ছাই,

বাইরে গিয়েও খেলতে মানা

এখন কোথায় যাই? 

 

দিনেদিনে বন্দিঘরে

হচ্ছে মাথা নষ্ট,

কেউ বোঝে না এই শিশুদের

অবুঝ মনের কষ্ট।

 

করোনাটা এসেই শেষে

স্কুল হলো বন্ধ,

ঘরের কোণে আর কতদিন

কাটবে সময় মন্দ! 

 

করোনাটা নাও তুলে নাও

আর লাগে না ভালো,

আঁধার মুছে দাও হে প্রভু

আকাশ ভরা আলো! 

 

 

কাক ও খুকি

মেজু আহমেদ খান

 

একটা কাকে

ভীষণ ডাকে

কা কা, 

গাছের ডালে

দুপুর কালে

চারিটা দিক ফাঁকা! 

 

ছোট্ট খুকি

উঁকি ঝুঁকি

মারছে কাকে দেখে,

ওমনি সে কাক

নিলো যে বাঁক

ফের কা কা কা ডেকে।

 

বলল খুকি কাক ও;

একলা একা ওমন করে 

বলবে কেনো ডাকো?

 

কাকটা বলে, খেলার সাথি নাই

আমার সাথে খেলবে তুমি?

কা কা ডেকে বলছি আমি তাই।

বাবার ছায়া

কাশীনাথ মজুমদার পিংকু

 

ছেলেবেলায় বিপদ-আপদ

আসতো যখন ধেয়ে

সদাই তখন ভরসা পেতাম

বাবার দিকে চেয়ে।

 

এখন আমি বড় হয়েও

নির্ভরতা খুঁজি

খুঁজতে গিয়ে মাথার ওপর

বাবার ছায়া বুঝি।

 

বাবা মানে কঠিন মানুষ

হৃদয়ভরা মায়া

জীবন চলার পথে বাবা

সর্বদা দেন ছায়া।

 

 

 

বিষ্টির আযান

আতিফ আবু বকর 

 

বিষ্টি এলে মিষ্টি হাসে

ভেজা পাতার জুঁই, 

বিল বাথানে হাসতে থাকে

ধান চাতরের ভুঁই। 

 

বিষ্টি এলে পুকুর হাসে 

সতেজ ডগা আর,

কচুর পাতায় জমে থাকে

আয়না উপহার। 

 

বিষ্টি এলে প্রাণ প্রকৃতি

শোনায় ঝুমুর গান,

বাও বাতাসে ধ্বনিত হয়

বিষ্টিরও আযান।

খোকার ইচ্ছে 

মাহমুদ নাঈম 

 

ইচ্ছে করে পাখির মতো

আকাশ পথে উড়তে

ইচ্ছে করে দেশ হতে দেশ  

ইচ্ছে মতো ঘুরতে।

 

ইচ্ছে করে মেঘের ভেলায়

মেঘের সাথে চড়তে

ইচ্ছে করে বৃষ্টি হয়ে

গ্রীষ্মকালে ঝরতে।

 

ইচ্ছে করে পাতার মতো

হাওয়ায় দুলে খেলতে 

ইচ্ছে করে পথিক এলে

বটের ছায়া মেলতে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ