ঢাকা, ‍শুক্রবার 17 September 2021, ২ আশ্বিন ১৪২৮, ৯ সফর ১৪৪৩ হিজরী
Online Edition

অ্যাপের মাধ্যমে ফাঁদ পেতে অভিযান, বিশ্বজুড়ে আটক ৮ শতাধিক অপরাধী

সংগ্রাম অনলাইন ডেস্ক: এফবিআই পরিচালিত একটি এনক্রিপটেড ম্যাসেজিং অ্যাপের মাধ্যমে ফাঁদ পেতে বিশ্বজুড়ে সংঘবদ্ধ অপরাধে জড়িত সন্দেহে ১৮টি দেশের ৮ শতাধিক ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন আইনপ্রয়োগকারী সংস্থার কর্মকর্তারা।

বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, অস্ট্রেলিয়ান ও ইউরোপীয় পুলিশ আর যুক্তরাষ্ট্রের ফেডারেল ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (এফবিআই) এক অভিযানে এদের গ্রেপ্তার করার পাশাপাশি নগদ ১৪ কোটি ৮০ লাখ ডলার এবং বিপুল পরিমাণ মাদকও জব্দ করা হয়েছে।

এফবিআই এ অভিযানের নাম দেয় অপারেশন ট্রোজান শিল্ড। অস্ট্রেলিয়ান পুলিশকে সঙ্গে নিয়ে তারা ২০১৮ সালেই এ অভিযানের পরিকল্পনা করে।

অভিযানটি বিশ্বজুড়ে সংঘবদ্ধ অপরাধীদের ওপর বড় ধরনের আঘাত হয়ে এসেছে বলে মন্তব্য করেছেন অস্ট্রেলিয়ান প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন।

“অস্ট্রেলিয়ার আইন প্রয়োগকারী সংস্থার ইতিহাসে এটি একটি আনন্দঘন মুহুর্ত,” সিডনিতে সাংবাদিকদের উদ্দেশ্যে এমনটাই বলেন তিনি।

অস্ট্রেলিয়ার ফেডারেল পুলিশ কমিশনার রিস কারশ জানান, বিশ্বজুড়ে চলা অভিযানে কেবল তার দেশ থেকেই ২২৪ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে, এদের মধ্যে বেআইনিঘোষিত মোটরসাইকেল গ্যাং-এর সদস্যরাও আছেন।

নিউ জিল্যান্ড জানিয়েছে তারাও ৩৫ জনকে আটক করেছে।

ইউরোপের মধ্যে সুইডেন ও জার্মানি থেকে ১৩৫ জন সন্দেহভাজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলে কর্মকর্তারা জানিয়েছেন। নেদারল্যান্ডসে গ্রেপ্তার হয়েছে ৪৯ জন।

বিবিসি জানিয়েছে, অপরাধীদের মধ্যে জনপ্রিয় হয়ে ওঠা অ্যাপটি অ্যানম নামে এফবিআই পরিচালিত একটি এনক্রিপ্টেড ডিভাইস কোম্পানি বানিয়েছিল। এফবিআই পরে গোপনে তাদের চরদের মাধ্যমে আন্ডারওয়ার্ল্ডের অপরাধীদের কাছে ওই অ্যাপসহ ডিভাইস সরবরাহ করে।

অ্যাপটি দ্রুতই অপরাধীদের মধ্যে জনপ্রিয় হয়ে ওঠে। শতাধিক দেশের ৩০০টিরও বেশি অপরাধী চক্র অ্যাপ সম্বলিত প্রায় ১২ হাজার ডিভাইস ব্যবহার করে।

অ্যাপটির ওপর নিয়ন্ত্রণ থাকায় আইন প্রয়োগকারী সংস্থাগুলো মাদক বেচাকেনা, সহিংসতা, খুনসহ সম্ভাব্য নানান অপরাধ ও অপরাধের পরিকল্পনার কথা জানতে পারে।

বিশ্বজুড়ে ৯ হাজার পুলিশ এই অভিযানে সম্পৃক্ত ছিল।

গ্রেপ্তার কারও নাম-পরিচয় জানানো হয়নি। এ বিষয়ে কর্মকর্তারা পরে আরও বিস্তারিত জানাবেন বলে বিবিসির প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ