শুক্রবার ২০ মে ২০২২
Online Edition

পাঁচ তারকা হোটেলে থাকবেন প্রিমিয়ার লিগের ক্রিকেটাররা

স্পোর্টস রিপোর্টার : গত বছরের ১৫ মার্চ করোনা ভাইরাসের আতঙ্ক মাথায় নিয়ে শুরু হয় ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ (ডিপিএল) ২০১৯-২০ মৌসুমের খেলা। এক রাউন্ড পর ঘোষণা আসে আপাতত স্থগিত রাখা হচ্ছে টুর্নামেন্টটির পরের রাউন্ড। পরিস্থিতির অবনতি হলে ২০২০ সালের ১৯ মার্চ বন্ধ হয়ে যায় দেশের সব ধরনের ক্রিকেট। সেই টুর্নামেন্ট আবার আলোর মুখ দেখছে। আগামী ৩১ মে থেকে শুরু হবে ঘরোয়া ক্রিকেটের এই মর্যাদাপূর্ণ আসর। খেলা হবে টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে। করোনা ভাইরাসের জন্য এই টুর্নামেন্ট হবে সর্বোচ্চ সুরক্ষা বলয়ের মধ্যে। জৈব সুরক্ষা বলয়ে প্রবেশের জন্য গতকাল থেকে করোনা ভাইরাস পরীক্ষার নমুনা দিচ্ছেন টুর্নামেন্টের খেলোয়াড়রা। আন্তর্জাতিক সিরিজগুলোতে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড যেমন সুরক্ষা বলয় তৈরি করে, ঘরোয়া টুর্নামেন্ট হলেও তেমনই নিরাপত্তা পাবে দলগুলো। রাজধানীর চারটি পাঁচতারকা হোটেলে রাখা হবে প্রিময়ার লিগের ১২টি দলকে। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের চিকিৎসক মনজুর হোসেন চৌধুরী বলেন, ‘প্রিমিয়ার লিগের জন্য সুরক্ষা বলয়ের যে কার্যক্রম সেগুলো ইতোমধ্যে শুরু হয়ে গেছে। আজ (গতকাল) খেলোয়াড়দের প্রথম ধাপের নমুনা নেওয়া হলো। আগামী ২৮ তারিখ দ্বিতীয়বার পরীক্ষা করা হবে। কর্মকর্তারা নমুনা দেবেন আগামী ২৭ ও ২৯ মে। এই দুই পরীক্ষার ফল নেগেটিভ এলে সবাই হোটেলে উঠবেন।’ মনজুর জানান,‘জৈব সুরক্ষা বলয়ের চারটি হোটেল নির্ধারণ করা হয়েছে। ইন্টারকন্টিনেন্টাল, আমার-ই, ওয়েস্টিন ও ফোর পয়েন্টস বাই শেরাটনে দলগুলো থাকবে। আন্তর্জাতিক সিরিজের সময় আমরা যেমন নিরাপত্তা নিশ্চিত করি, ডিপিএলের তেমটিই থাকবে।’

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ