ঢাকা, সোমবার 1 March 2021, ১৬ ফাল্গুন ১৪২৭, ১৬ রজব ১৪৪২ হিজরী
Online Edition

নিরাপদ আবাসন কেন্দ্র থেকে কিশোরীর লাশ উদ্ধার

সংগ্রাম অনলাইন ডেস্ক: গাজীপুর সিটি করপোরেশনের ভোগড়া মহিলা, শিশু ও কিশোরী হেফাজতিদের নিরাপদ আবাসন কেন্দ্রের তৃতীয় তলা থেকে এক কিশোরীর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।  

মঙ্গলবার (২৬ জানুয়ারি) বিকেলে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।

নিহত কিশোরী হলেন- ময়মনসিংহের নান্দাইল উপজেলার মুসল্লী উত্তর কোনাপাড়া এলাকার মো. হারেছ মিয়ার মেয়ে নাজমা আক্তার (২০)।  

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, গাজীপুর সিটি করপোরেশনের বাসন থানাধীন ভোগড়া এলাকায়  মহিলা, শিশু ও কিশোরী হেফাজতিদের নিরাপদ আবাসন কেন্দ্র রয়েছে। গত বছরের ২২ ডিসেম্বর নাজমাকে গাজীপুর সিটি করপোরেশনের কোনাবাড়ী শিশু কিশোরী উন্নয়ন কেন্দ্র (বালিকা) থেকে ঢাকা শাহআলী থানার মামলা নম্বর- ০৪(৮)২০২০ এর ধারা নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন ২০০০ সং/২০০৩ এর ০৯(০১) এর ভিকটিম হিসেবে অত্র প্রতিষ্ঠানে আনা হয়। মঙ্গলবার বেলা ১১ টার দিকে সবাইকে প্রতিদিনের মতো নিচে নামানো হলে ভিকটিক মাথা ব্যথার অযুহাতে নিচে নামেননি। পরবর্তীতে তাকে দুপুর দেড়টার দিকে ৩০৩ নম্বর রুমের টয়লেটের দরজার সঙ্গে গলায় ওড়না পেঁচানো ঝুলন্ত অবস্থায় দেখে অন্যান্য নিবাসীরা। পরে ডিউটিরত মহিলা পুলিশসহ ওই কিশোরীকে উদ্ধার করে শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিক্যাল হাসপাতালে নিলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। পরে পুলিশ লাশ ওই হাসপাতালের মর্গে পাঠায়।  

বাসন থানার পরিদর্শক মিজানুর রহমান জানান, ওই কিশোরী গলায় ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করেছে। তবে কি কারণে আত্মহত্যা করেছে সেটি এখনও নিশ্চিত হওয়া যায়নি। তার গলা ছাড়া শরীরের আর কোথাও আঘাতের চিহ্ন প্রাথমিকভাবে পাওয়া যায়নি।  

গাজীপুরের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মো. আবুল কালাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, ঘটনাটির তদন্ত করতে একজন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটকে সেখানে পাঠানো হয়েছে।  

ডিএস/এএইচ

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ