বৃহস্পতিবার ০৪ মার্চ ২০২১
Online Edition

বিশ্বজুড়ে একদিনে করোনায় আরও ১৫ হাজার ৭১১ জনের মৃত্যু

স্টাফ রিপোর্টার : বিশ্বে চলছে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ। এরমধ্যে ইউরোপে মিলেছে করোনার নতুন ধরন, যা আগের ভাইরাস থেকে অনেকটা শক্তিশালী বলে ধারণা করছেন বিশেষজ্ঞরা। গত ২৪ ঘণ্টায় বিশ্বব্যাপী তাণ্ডব চালিয়েছে করোনা। একদিনে প্রাণ কেড়ে নিয়েছে আরও ১৫ হাজার ৭১১ জনের। এছাড়া ২৪ ঘণ্টায় সারা বিশ্বে আক্রান্ত হয়েছেন ৬ লাখ ৬৩ হাজার ৩৫৩ জন। এ নিয়ে করোনায় বিশ্বে আক্রান্তের সংখ্যা ছাড়িয়েছে ৯ কোটি ২০ লাখ এবং মৃতের সংখ্যা ছাড়িয়েছে ১৯ লাখ ৭০ হাজার।
করোনা ভাইরাসে আক্রান্তদের সংখ্যা ও প্রাণহানির পরিসংখ্যান রাখা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডওমিটারের তথ্যানুযায়ী, বুধবার সকাল পর্যন্ত বিশ্বে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৯ কোটি ২০ লাখ ৬ হাজার ১৬৫ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ১৯ লাখ ৭০ হাজার ৩০ জনের। সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ৬ কোটি ৫৮ লাখ ১৮ হাজার ৬২৯ জন।
করোনায় এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি সংক্রমণ ও মৃত্যু হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রে। তালিকায় শীর্ষে থাকা দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন দুই কোটি ৩৩ লাখ ৬৮ হাজার ২২৫ জন। মৃত্যু হয়েছে তিন লাখ ৮৯ হাজার ৫৯৯ জনের। আক্রান্তে দ্বিতীয় ও মৃত্যুতে তৃতীয় অবস্থানে থাকা ভারতে এখন পর্যন্ত সংক্রমিত হয়েছেন এক কোটি ৪৯ লাখ ৯৫ হাজার ৮১৬ জন এবং মারা গেছেন এক লাখ ৫১ হাজার ৫৬৪ জন।
আক্রান্তে তৃতীয় এবং মৃত্যুতে দ্বিতীয় অবস্থানে থাকা লাতিন আমেরিকার দেশ ব্রাজিলে এখন পর্যন্ত করোনায় ৮১ লাখ ৯৫ হাজার ৬৩৭ জন সংক্রমিত হয়েছেন। মৃত্যু হয়েছে দুই লাখ ৪ হাজার ৭২৬ জনের। আক্রান্তের দিক থেকে রাশিয়া চতুর্থ স্থানে রয়েছে। দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ৩৪ লাখ ৪৮ হাজার ২০৩ জন। ভাইরাসটিতে মারা গেছে ৬২ হাজার ৮০৪ জন। পঞ্চম স্থানে থাকা যুক্তরাজ্যে এখন পর্যন্ত করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন ৩১ লাখ ৬৪ হাজার ৫১ জন। এর মধ্যে মারা গেছে ৮৩ হাজার ২০৩ জন। এদিকে আক্রান্তের তালিকায় ফ্রান্স ষষ্ঠ, তুরস্ক সপ্তম, ইতালি অষ্টম, স্পেন নবম এবং জার্মানি দশম স্থানে আছে। এছাড়া বাংলাদেশের অবস্থান ২৭তম।
গত বছরের ডিসেম্বরের শেষ দিকে চীনের হুবেই প্রদেশের উহান থেকে করোনাভাইরাস সংক্রমণ শুরু হয়। এখন পর্যন্ত বাংলাদেশসহ বিশ্বের ২১৮টি দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে কোভিড-১৯।
এদিকে মহামারি করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ১৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। যা গত দুই মাসের মধ্যে সবচেয়ে কম। সর্বশেষ গত ১২ নভেম্বর করোনায় ১৩ জনের মৃত্যু হয়। এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা দাঁড়ালো ৭ হাজার ৮৩৩ জনে। এছাড়া এ সময়ের মধ্যে নতুন করে শনাক্ত হয়েছে আরও ৮৯০ জন। এ পর্যন্ত শনাক্ত হয়েছে ৫ লাখ ২৪ হাজার ৯১০ জন।
বুধবার স্বাস্থ্য অধিদফতর থেকে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তি থেকে দেশের করোনা পরিস্থিতির সর্বশেষ এ তথ্য জানা গেছে।
বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গত একদিনে সুস্থ হয়েছেন ৮৪১ জন। মোট সুস্থ হয়েছেন ৪ লাখ ৬৯ হাজার ৫২২ জন। মৃতদের মধ্যে পুরুষ ৬ জন, নারী ৮ জন।
গত ৮ মার্চ বাংলাদেশে প্রথম করোনা ভাইরাস শনাক্ত হয়। প্রথম মৃত্যুর খবর আসে ১৮ মার্চ। এর মধ্যে গত ৫ নভেম্বর মৃত্যুর সংখ্যা ৬ হাজার ছাড়িয়েছে। একদিনে সর্বোচ্চ ৬৪ জনের মৃত্যুর খবর আসে ৩০ জুন।
গত বছরের ডিসেম্বরে চীনে করোনা ভাইরাসের উপদ্রব শুরু হয়। বর্তমানে বিশ্বের ২১৩ দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে এই ভাইরাস। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ১১ মার্চ কোভিড-১৯ কে বৈশ্বিক মহামারি ঘোষণা করে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ