বুধবার ০২ ডিসেম্বর ২০২০
Online Edition

বিশ্বে করোনায় মৃত্যু ছাড়াল পৌনে ১০ লাখ

স্টাফ রিপোর্টার : বৈশ্বিক মহামারি করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাাঁড়িয়েছে প্রায় ৩ কোটি ১৮ লাখ ১২ হাজার। আর এ মহামারিতে আক্রান্ত হয়ে বিশ্বে মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৯ লাখ ৭৫ হাজারের বেশি।
করোনা ভাইরাসে আক্রান্তদের সংখ্যা ও প্রাণহানির পরিসংখ্যান রাখা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডওমিটারের তথ্যানুযায়ী, বুধবার পর্যন্ত বিশ্বের বিভিন্ন দেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে ৯ লাখ ৭৫ হাজার ৯৫১ জনের এবং আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৩ কোটি ১৮ লাখ ১২ হাজার ৮৫৪ জনে। এর মধ্যে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ২ কোটি ৩৪ লাখ ১৯ হাজার ৩৬১ জন।
বিশ্বে এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়ে সবচেয়ে বেশি মৃত্যু হয়েছে যুক্তরাষ্ট্রে, ২ লাখ ৫ হাজার ৪৭৮ জন। বিশ্বে সর্বোচ্চ আক্রান্তের সংখ্যাও এই দেশটিতে। এ নিয়ে ৭০ লাখ ৯৮ হাজার ২৯১ জন এখন পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছেন।
করোনা আক্রান্তের সংখ্যায় তৃতীয় এবং মৃতের সংখ্যায় দ্বিতীয় অবস্থানে আছে ব্রাজিল। দেশটিতে এখন পর্যন্ত এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৪৫ লাখ ৯৫ হাজার ৩৩৫ জন। আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ১ লাখ ৩৮ হাজার ১৫৯ জন।
করোনায় মৃতের দিক থেকে চতুর্থ অবস্থানে আছে মেক্সিকো। দেশটিতে এখন পর্যন্ত এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৭৪ হাজার ৩৪৮ জন। আর এ পর্যন্ত দেশটিতে আক্রান্ত হয়েছে ৭ লাখ ০৫ হাজার ২৬৩ জন।
আক্রান্তের দিক থেকে চতুর্থ অবস্থানে আছে রাশিয়া। দেশটিতে এখন পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছে ১১ লাখ ২২ হাজার ২৪১ জন। আর মৃতের সংখ্যা ১৯ হাজার ৭৯৯ জন।
এদিকে বাংলাদেশের প্রতিবেশি দেশ ভারতে নতুন করে ৮৩ হাজার করোনা ভাইরাস আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হওয়ার মধ্য দিয়ে এ সংখ্যা এখন ৫৬ লাখ ছাড়িয়েছে। বুধবার দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় জানায় যে এক দিনে আরও ১ হাজার ৮৫ জনের মৃত্যুর মধ্য দিয়ে এ সংখ্যা পৌঁছেছে ৯০ হাজার ২০ জনে, খবর এপি।
ভারত কয়েক সপ্তাহের মধ্যে করোনায় মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রকে ছাড়িয়ে বিশ্বের সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত দেশ হয়ে উঠবে বলে মনে করা হচ্ছে। যুক্তরাষ্ট্রে প্রায় ৬৯ লাখ করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছেন।
তবে, গত সপ্তাহে ভারতে কিছুটা উন্নতি দেখা গেছে। ১৬ সেপ্টেম্বর এক দিনে রেকর্ড ৯৭ হাজার ৮৯৪ জন করোনা রোগী শনাক্ত হওয়ার পর তা ক্রমে হ্রাস পাচ্ছে। এদিকে মঙ্গলবার ইন্ডিয়ান কাউন্সিল ফর মেডিকেল রিসার্চের (আইসিএমআর) মহাপরিচালক বলরাম ভার্গাভা বলেছেন, কমপক্ষে ৫০ শতাংশ কার্যকারিতাযুক্ত টিকা করোনভাইরাসের বিরুদ্ধে ব্যবহারের জন্য অনুমোদন দেয়া হবে।
ভার্গাভা সাংবাদিকদের জানান, টিকার ৫০ শতাংশ কার্যকারিতা থাকা হলো বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা নির্ধারিত মানদণ্ড। শ্বাসজনিত রোগের কোনো টিকা শতভাগ কার্যকর নয়।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ