রবিবার ০৯ আগস্ট ২০২০
Online Edition

ঈদের পূর্ব মুহূর্তেও জুলম-নির্যাতনের হাত থেকে মানুষ রেহাই পাচ্ছে না  - রফিকুল ইসলাম খান

বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামী সিরাজগঞ্জ জেলার উল্লাপাড়া উপজেলার সদর ইউনিয়ন সভাপতি মোঃ আতাউর রহমানসহ জামায়াতে ইসলামী ও ইসলামী ছাত্রশিবিরের ৪ জন নেতা-কর্মীকে গ্রেফতার করার ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল মাওলানা রফিকুল ইসলাম খান বিবৃতি দিয়েছেন। 

গতকাল বৃহস্পতিবার দেয়া বিবৃতিতে তিনি বলেন, গত ২৯ জুলাই গভীর রাতে উল্লাপড়া সদর ইউনিয়ন জামায়াতের সভাপতি মোঃ আতাউর রহমান, শিবিরকর্মী মনিরুল ইসলাম ও মাসুদ রানাকে তাদের নিজ নিজ বাসা থেকে এবং শ্বশুর বাড়িতে বেড়াতে আসা মোঃ হাসান আলীকে তার শ্বশুরবাড়ি থেকে পুলিশ গ্রেফতার করেছে। এভাবে কোনো কারণ ছাড়াই কাউকে গ্রেফতার করা গণতন্ত্র ও আইনের শাসনের পরিপন্থী। দেশে প্রতিনিয়ত ধর্ষণ, খুন-খারাবির মত জঘন্য অপরাধ সংগঠিত হচ্ছে। পুলিশ তাদের গ্রেফতার না করে নিরপরাধ জামায়াত-শিবির কর্মীদের গ্রেফতার করেছে। অনেককে বাসা বাড়িতে গিয়ে হয়রানি করা হচ্ছে। 

তিনি বলেন, দেশ পরিচালনায় সম্পূর্ণ ব্যর্থ এ সরকার নিজেদের অপকর্ম ঢাকা দেয়ার জন্যই এখন আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী দিয়ে জামায়াত-শিবিরের নেতা-কর্মীদের গ্রেফতার ও হয়রানি করছে। ঈদের পূর্ব মুহূর্তেও তাদের জুলম-নির্যাতনের হাত থেকে মানুষ রেহাই পাচ্ছে না।

উল্লাপাড়া সদর ইউনিয়ন সভাপতি মোঃ আতাউর রহমানসহ জামায়াতে ইসলামী ও ইসলামী ছাত্রশিবিরের ৪ জন কর্মীকে অবিলম্বে ঈদুল আযহার পূর্বেই মুক্তি প্রদান করার জন্য তিনি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের প্রতি আহবান জানান।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ