সোমবার ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০
Online Edition

রাজশাহীর বীরবিক্রম আবদুল খালেকের ইন্তিকাল

রাজশাহী অফিস: দেশ স্বাধীন হওয়ার ৪৮ বছর পর ‘বীর বিক্রম’ খেতাব নিশ্চিত হওয়ার পত্র পেয়েছিলেন মাত্র কয়েকদিন আগেই। কিন্তু সেই চিঠি পাওয়ার উচ্ছ্বাস না ফুরাতেই চিরবিদায় নিলেন রাজশাহীর গোদাগাড়ী উপজেলার মুক্তিযোদ্ধা আবদুল খালেক (৮৩)। রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় বুধবার দিবাগত রাত ২টায় তিনি ইন্তেকাল করেন তিনি (ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)।

বীর বিক্রম আবদুল খালেকের বাড়ি গোদাগাড়ীর চাপাল গ্রামে। করোনার উপসর্গ নিয়ে গত সোমবার তাঁকে রামেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তবে নমুনা পরীক্ষায় তার করোনা শনাক্ত হয়নি। হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান। বৃহস্পতিবার দুপুর ২টায় তাঁর জানাজা অনুষ্ঠিত হবে। গত ৬ জুন নতুন প্রকাশিত খেতাবপ্রাপ্ত মুক্তিযোদ্ধাদের গেজেটে তাঁর নাম উঠে। গেজেট বিভ্রাটের কারেণ তার বীর বিক্রম স্বীকৃতি পেতে বিলম্ব হয়েছে। পূর্বেই ঘোষণা হলেও গেজেট বিভ্রাটের কারণে এতোদিন বীর বিক্রম আব্দুল খালেক স্বীকৃতি পাননি। ১৯৭৩ সালে প্রকাশিত গেজেটে এক ধরণের ভুল ছিল, ২০০৪ সালের গেজেটে আরেক ধরণের ভুল। প্রথমবার লেখা হলো ‘এক্স নেভি’। পরের বার সেনাবাহিনী। 

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ