শুক্রবার ০৪ ডিসেম্বর ২০২০
Online Edition

পাকিস্তান স্টক এক্সচেঞ্জে হামলায় ৪ বন্দুকধারীসহ নিহত ১০

২৯ জুন, বিবিসি, ডন : পাকিস্তান স্টক এক্সচেঞ্জ ভবনে বন্দুকধারীরা হামলা চালিয়েছে। গতকাল সোমবার সকালে করাচিতে এ ঘটনা ঘটে।

হামলা বানচাল করতে গিয়ে প্রাণ হারিয়েছেন ৪ নিরাপত্তা প্রহরী ও একজন পুলিশের উপপরিদর্শক। এছাড়া একজন সাধারণ নাগরিকও নিহত হয়েছেন।

তবে হামলার পরপরই আইনশৃঙ্খলা বাহিনী দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছে ৪ হামলাকারীকে গুলি করে হত্যা করেন।

পাকিস্তানি সংবাদমাধ্যম দ্য ডন এসব তথ্য নিশ্চিত করেছে।

পুলিশ জানিয়েছে, হামলাকারীরা গ্রেনেড ও অটোমেটিক রাইফেল নিয়ে সজ্জিত ছিল। স্থানীয় সময় সকাল ১০টার একটু আগে তারা গ্রেনেড ব্যবহার করে আক্রমণ শুরু করে, তারপর পাকিস্তান স্টক এক্সচেঞ্জের প্রবেশ পথে গুলি চালায়। তারা ভবনে প্রবেশের চেষ্টা করলেও নিরাপত্তা বাহিনী তাদের হত্যা করে।

সিন্ধু রেঞ্জার্স জানিয়েছে, হামলার পরপরই পুলিশ ও রেঞ্জার কর্মকর্তারা ঘটনাস্থলে পৌঁছে চার হামলাকারীকে হত্যা করে। ওই এলাকায় এখনও অভিযান চলছে।

হামলাকারীদের কাছ থেকে বেশ কয়েকটি আগ্নেয়াস্ত্র ও গ্রেনেড উদ্ধার করা হয়েছে।

এছাড়া হামলায় আহত ৩ পুলিশ সদস্যকে ডা. রুথ পফু সিভিল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

স্টক এক্সচেঞ্জ ভবনটির অবস্থান করাচির উচ্চ নিরাপত্তা অঞ্চলে।  কেন্দ্রীয় ব্যাংকসহ বেশ কয়েকটি বেসরকারি ব্যাংকেরও প্রধান কার্যালয় রয়েছে সেখানে।  বিবিসির প্রতিবেদন অনুযায়ী, ভবনের মূল প্রবেশ পথে গ্রেনেড হামলা চালানোর পর ভেতরে প্রবেশ করে বন্দুকধারীরা। এরপর তারা গুলি ছুড়তে থাকে। এতে দুই নিরাপত্তা রক্ষী ও এক পুলিশ সদস্য নিহত হন।

তবে হামলাকারী ঠিক কতজন ছিল এবং তারা কারা সে সম্পর্কে বিস্তারিত জানা যায়নি। পাকিস্তান স্টক এক্সচেঞ্জ এর পরিচালক আবিদ আলী হাবিব বলেছেন, কার পার্ক থেকে এসে বন্দুকধারীরা হামলা চালায় এবং প্রত্যেকের ওপর গুলি চালাতে শুরু করে।

তবে জিও টিভি বলছে ভবনের ভেতরে আটকে পড়া লোকজনকে পেছনের দরজা দিয়ে বের করে আনা হয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ