ঢাকা, শনিবার 4 July 2020, ২০ আষাঢ় ১৪২৭, ১২ জিলক্বদ ১৪৪১ হিজরী
Online Edition

ক্বারী ইলিয়াছ, সাজেদা ও আসমা বেগমের ইন্তিকালে ঢাকা মহানগরী দক্ষিণ জামায়াতের শোক

 

সংগ্রাম অনলাইন : বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামী ঢাকা মহানগরী দক্ষিণের মুগদা উত্তর থানার কর্মী হাফেজ ক্বারী ইলিয়াছ মিয়া, হাজারীবাগ উত্তর থানার মহিলা রুকন (সদস্য) সাজেদা খানম এবং শাহজাহানপুর থানার মহিলা রুকন আসমা বেগমের ইন্তেকালে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর কেন্দ্রীয় নির্বাহী পরিষদ সদস্য ও ঢাকা মহানগরী দক্ষিণের আমীর নুরুল ইসলাম বুলবুল এবং কেন্দ্রীয় কর্মপরিষদ সদস্য ও ঢাকা মহানগরী দক্ষিণের সেক্রেটারি ড. শফিকুল ইসলাম মাসুদ।

শনিবার দেয়া যৌথ শোকবার্তায় নেতৃবৃন্দ মরহুম ও মরহুমা দ্বয়ের ইসলামী আদর্শের প্রচার ও মহিলা অঙ্গনে দ্বীনের খেদমতে বিশেষ অবদানের কথা স্মরণ করে এ শোক প্রকাশ করেন।

শোকবার্তায় নেতৃবৃন্দ মরহুম ও মরহুমাদের রুহের মাগফেরাত কামনা করেন ও তাদের শোকসন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান। নেতৃবৃন্দ মহান আল্লাহ রাব্বুল আলামীনের কাছে দোআ করেন, আল্লাহ যেন তাদের নেক আমল সমূহ কবুল করে জান্নাতবাসী করেন এবং তাদের পরিবার ও আত্মীয় স্বজনকে ধৈর্য ধারণ করার তৌফিক দান করেন।

উল্লেখ্য, হাফেজ ক্বারী ইলিয়াছ মিয়া আজ সকালে নিজ বাসায় ইন্তিকাল করেন (ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না-ইলাইহি রাজিউন)। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৫৮ বছর। তিনি স্ত্রী, ৪ মেয়েসহ অসংখ্য আত্মীয়-স্বজন ও গুণগ্রাহী রেখে গেছেন। মরহুমের ছোট ভাই মাওলানা ইসহাক মুগদা উত্তর থানা জামায়াতের সেক্রেটারি হিসেবে দায়িত্বপালন করছেন। মরহুম কর্মজীবনে খলিশাজানি কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের খতিব এবং ইমাম সমিতি ফুলবাড়িয়া, কালিয়াকৈর, গাজীপুরের সেক্রেটারী ছিলেন। 

সাজেদা খানম বৃহস্পতিবার বিকাল ৪টায় ইন্তিকাল করেন (ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না-ইলাইহি রাজিউন)। তিনি দির্ঘদিন যাবৎ ঘাতক ব্যাধি ক্যান্সারে আক্রান্ত ছিলেন। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৭০ বছর। তিনি স্বামী, ১ মেয়েসহ অসংখ্য আত্মীয়-স্বজন ও গুণগ্রাহী রেখে গেছেন। মরহুমার স্বামী ইঞ্জিনিয়ার জহিরুল ইসলাম।

আসমা বেগম বৃহস্পতিবার বিকাল ৫.৩০ টায় নিজ বাসভবনে দূর্ঘটনাজনিত কারণে ইন্তিকাল করেন (ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না-ইলাইহি রাজিউন)। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৩৫ বছর। তিনি স্বামী, ২ ছেলে ৩ মেয়ে সহ অসংখ্য আত্মীয়-স্বজন ও গুণগ্রাহী রেখে গেছেন। মরহুমার স্বামী খোকন মোল্লা শাহজাহানপুর থানা জামায়াতের রুকন। মরহুমার নামাজে জানাজা রাত ১০.৩০ মিনিটে রাজধানীর বেনজীর বাগান মসজিদে অনুষ্ঠিত হয়। জানাজার নামাজে ইমামতী করেন মসজিদের খতিব ও স্থানীয় হিলফুল ফুজুল সংগঠনের সভাপতি মাওলানা ইমদাদুল্লাহ। জানাজায় উপস্থিত ছিলেন ইসলামী ছাত্রশিবিরের সাবেক সভাপতি ও ঢাকা মহানগরী দক্ষিণের সহকারী সেক্রেটারী মুহাম্মদ আবদুল জব্বার, শাহাজাহানপুর থানা আমীর মাওলানা শরিফুল ইসলাম এবং স্থানীয় জামায়াতের নেতাকর্মীসহ সাধারণ মুসল্লিগণ প্রমুখ। জানাজা শেষে মরহুমাকে শাহজাহানপুর কবরস্থানে দাফন করা হয়। 

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ