ঢাকা, শনিবার 4 July 2020, ২০ আষাঢ় ১৪২৭, ১২ জিলক্বদ ১৪৪১ হিজরী
Online Edition

২৪৩ বছরের ইতিহাসে ২২৭ বছরই যুদ্ধ করেছে আমেরিকা: ইরান

সংগ্রাম অনলাইন ডেস্ক: ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র সাইয়্যেদ আব্বাস মুসাভি তার দেশের বিরুদ্ধে আমেরিকার ভিত্তিহীন অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করে বলেছেন, অন্য দেশের ব্যাপারে কথা বলার রাজনৈতিক, আইনগত ও নৈতিক অধিকার হারিয়েছে আমেরিকা।

সম্প্রতি মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় দাবি করেছে, বিশ্বের বহু দেশে ইরান সন্ত্রাসী হামলা চালিয়েছে।ওই অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করে মুসাভি বলেন, এটি হচ্ছে কল্পনা ও বিভ্রান্তির এমন এক সংমিশ্রণ যার পক্ষে কখনোই কোনো দলিল-প্রমাণ উপস্থাপন করতে পারেনি আমেরিকা। আর এ অভিযোগ সেই দেশের পক্ষ থেকে উত্থাপিত হয়েছে যেটি গত এক দশকে নানা অজুহাতে বিশ্বের ৫৫টি দেশে হস্তক্ষেপ করেছে।

২০১৭ সাল থেকে আমেরিকার একতরফা নিষেধাজ্ঞা বিশ্বের ৩৩টি দেশের ওপর ধ্বংসাত্মক প্রভাব ফেলেছে বলে জানান ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র। তিনি বলেন, মার্কিন সরকার তার ইতিহাসে ১৩৫টি বড় যুদ্ধ শুরু করেছে এবং ২৪৩ বছরের ইতিহাসে মাত্র ১৬ বছর যুদ্ধ করেনি আমেরিকা।

মার্কিন সরকারকে সন্ত্রাসবাদের পৃষ্ঠপোষক উল্লেখ করে সাইয়্যেদ মুসাভি বলেন, হাতে থাকা দলিল-প্রমাণে দেখা যায়, আমেরিকা  ১৯৬০’র দশক থেকে পশ্চিম এশিয়া, ইউরোপ ও ল্যাতিন আমেরিকার অন্তত আটটি স্বীকৃত সন্ত্রাসী গোষ্ঠীকে সর্বাত্মক সহযোগিতা করেছে। তিনি বলেন, কাজেই অন্য দেশের দিকে অঙ্গুলি নির্দেশ করা আগে আমেরিকার উচিত নিজের নোংরা ও কলুষিত অতীতের দিকে তাকানো।

ডিএস/এএইচ

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ