ঢাকা, শনিবার 24 October 2020, ৮ কার্তিক ১৪২৭, ৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী
Online Edition

করোনায় এস আলম গ্রুপের পরিচালকের মৃত্যু

সংগ্রাম অনলাইন ডেস্ক: করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন দেশের অন্যতম প্রধান শিল্পগোষ্ঠি এস আলম গ্রুপের পরিচালক (মার্কেটিং) মোরশেদুল আলম।ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন।তাঁর বয়স হয়েছিল ৬২ বছর। চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) গতকাল শুক্রবার রাত ১০টার দিকে তাঁর মৃত্যু হয়।তিনি এস আলম গ্রুপের চেয়ারম্যান সাইফুল আলম মাসুদের বড় ভাই।

মোরশেদুল আলম বেসরকারি এনআরবি গ্লোবাল ব্যাংকের একজন পরিচালক ছিলেন। তিনি ছিলেন এস আলম সুপার এডিবল অয়েল লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও চেমন ইস্পাত লিমিটেডের চেয়ারম্যান।

প্রসঙ্গত, গত সপ্তাহে এস আলম গ্রুপের চেয়ারম্যান সাইফুল আলম মাসুদের পাঁচ ভাইসহ তার পরিবারের মোট ৬ সদস্য করোনা ভাইরাসে (কোভিড-১৯) আক্রান্ত হয়েছেন। এদের মধ্যে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত আল আরাফা ইসলামী ব্যাংকের চেয়ারম্যান আবদুস সামাদ লাবুও রয়েছেন। আর এস আলম বা সাইফুল আলম মাসুদ তার পরিবারসহ সিঙ্গাপুর অবস্থান করছেন।

এ বিষয়ে চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালের সিনিয়র কনসালটেন্ট ডা. আবদুর রব জানান, মোরশেদুল আলমসহ তার পরিবারের ৬ সদস্যের (পাঁচ ভাই ও একজন ড্রাইভার) গত ১৭ মে করোনা পজিটিভ ধরা পড়ে। এর মধ্যে মোরশেদুল আলমের শারীরিক অবস্থা কিছুটা খারাপ ছিলো। গত বৃহস্পতিবার তিনি শ্বাসকষ্টসহ চট্টগ্রামের করোনা বিশেষায়িত হাসপাতাল জেনারেল হাসপাতালের আইসিইউতে ভর্তি হন। শুক্রবার সারাদিন তার শারীরিক অবস্থা ভালো থাকলেও সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে তার একদফা কার্ডিয়াক এরেস্ট হয়। এরপর রাত সাড়ে ১০টার দিকে চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন।মোরশেদুল আলমের বয়স হয়েছিল ৬৬ বছর। তার ৩ ছেলে। বর্তমানে সুগন্ধা আবাসিক এলাকায় তাদের বাড়িটি লকডাউন অবস্থায় আছে।

প্রসঙ্গত, এস আলম গ্রুপ দেশের ব্যাংকিং ও আর্থিক প্রতিষ্ঠান খাতের বড় অংশ নিয়ন্ত্রণ করছেন। তাদের মালিকানায় রয়েছে ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেড, আল আরাফা ইসলামী ব্যাংক, ইউনিয়ন ব্যাংক, সোশ্যাল ইসলামী ব্যাংক (এসআইবিএল), ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক, এনআরবি গ্লোবাল ব্যাংক ও বাংলাদেশ কমার্স ব্যাংক লিমিটেড। এছাড়াও কয়েকটি আর্থিক প্রতিষ্ঠান ও ইন্স্যুরেন্স কোম্পানি রয়েছে তাদের দখলে।

ডিএস/এএইচ

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ