বৃহস্পতিবার ১৩ আগস্ট ২০২০
Online Edition

পবিত্র জুমাতুল বিদা পালিত

গতকাল শুক্রবার জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমে জুমাতুল বিদার নামায আদায় করছেন মুসল্লিরা -সংগ্রাম

স্টাফ রিপোর্টার : পবিত্র রমযানের শেষ শুক্রবার হিসেবে গতকাল পবিত্র জমাতুল বিদা পালিত হয়েছে। জুমার নামাযে সকল মসজিদে মুসল্লীদের ঢল নামে। মসজিদের বারান্দা, ছাদ ও আশে পাশের রাস্তায় দাঁড়িয়ে মানুষ নামায আদায় করেছে। যে সমস্ত মসজিদে মহিলাদের নামাযের ব্যবস্থা আছে, সে সকল মসজিদে মহিলাদের উপস্থিতিও ছিল বেশ।
পবিত্র জুমাতুল বিদা উপলক্ষে ছেলে বুড়ো সকলেই জুমার নামাযে হাজির হয়ে আল্লাহর কাছে ক্ষমা ও রহমত কামনা করেছে। জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররম মসজিদ কানায় কানায় পূর্ণ হয়েছে। সবাই এক তাকবীরে আল্লাহর নির্দেশ পালনের অপূর্ব উদাহরণ লক্ষ্য করা গেছে বায়তুল মোকাররমে। জাতীয় মসজিদসহ রাজধানীর অন্যান্য মসজিদ এবং সারাদেশের সকল মসজিদের চিত্রই ছিল একইরকম। তবে করোনার কারণে সকল মসজিদেই স্বাস্থ ্যবিধি মেনে নামায আদায় করা হয়েছে। নামায শেষে দোয়ায় দেশ ও জাতির জন্য কল্যাণ কামনা করা হয়েছে। খুতবায় রমযানের তাৎপর্য ও বর্তমান প্রেক্ষাপটে মুসলমানদের করণীয় সর্ম্পকে খতিবগণ আলোচনা করেছেন।
মাহে রমযানের বিদায়কালীন শুক্রবার তথা শেষ জুমার দিন জুমাতুল বিদা নামে পরিচিত। এ দিনটি রমযান মাসের শেষ জুমা হিসেবে ‘আল-কুদ্স দিবস’ পালিত হওয়ায় এর গুরুত্ব, তাৎপর্য ও মাহাত্ম্য অপরিসীম। রমযান মাসের শেষ শুক্রবার হিসেবে সারা বিশ্বের ধর্মপ্রাণ মুসলমানেরা একটি মাস ত্যাগ-তিতিক্ষার সঙ্গে সিয়াম সাধনা বা রোজা রাখার পর গতকাল জুমার নামাজ আদায় করে মাহে রমযানকে বিদায় সম্ভাষণ জানান।
জুমার নামাজের গুরুত্ব সর্ম্পকে আল্লাহ তাআলা ঘোষণা করেছেন, হে মুমিনগণ! জুমার দিনে যখন নামাজের জন্য আহ্বান করা হয়, তখন তোমরা আল্লাহর স্মরণে ধাবিত হও এবং ক্রয়-বিক্রয় ত্যাগ কর। এটাই তোমাদের জন্য শ্রেয়, যদি তোমরা উপলব্ধি কর। (সূরা আল-জুমুআ, আয়াত-৯)
রমযান মাসের সর্বোত্তম রজনী হলো লাইলাতুল কদর, আর সর্বোত্তম দিবস হলো জুমাতুল বিদা। এ দিন মুমিন মুসলমানদের ঈমানি সম্মিলন হয়। এ দিনে এমন একটি সময় আছে, যে সময় মুমিন বান্দার মোনাজাত ও ইবাদত আল্লাহ পাক বিশেষভাবে কবুল করেন। এ সময়টি হলো দ্বিতীয় খুতবার আজানের সময় থেকে সূর্যাস্তের পূর্ব পর্যন্ত। জুমার দিনের শ্রেষ্ঠত্ব ও ফজিলত সম্পর্কে রাসুলুল্লাহ (সা.) বাণী প্রদান করেছেন, ‘সপ্তাহের সাত দিনের মধ্যে জুমাবার সর্বাধিক মর্যাদাবান ও নেতৃস্থানীয় দিন। এ পুণ্য দিনে আদি পিতা হজরত আদম (আ.)-কে সৃষ্টি করা হয়। এ দিনে তিনি জান্নাতে প্রবেশ করেন। এ দিনে তিনি পুনরায় পৃথিবীতে আগমন করেন। এ দিনে তাঁর ইন্তেকাল হয়। এ শুক্রবারেই কিয়ামত সংঘটিত হবে। এ পুণ্য দিনে এমন একটি সময় রয়েছে, যে সময় আল্লাহর দরবারে দোয়া কবুল হয়।’ (মিশকাত)
যে তিনটি বিষয় জুমাতুল বিদাকে আল্লাহর করুণা, দয়া, ক্ষমা তথা মাগফিরাত ও নাজাত লাভের দিবস হিসেবে চিহ্নিত করেছে, তা হচ্ছে মাহে রমযান, জুমাতুল বিদা এবং রমযান মাসের শেষ শুক্রবার ‘আল-কুদ্স দিবস’। রাসুলুল্লাহ (সা.) যে তিনটি মসজিদের উদ্দেশ্যে সফরকে বিশেষভাবে সওয়াবের কাজ হিসেবে উল্লেখ করেছেন তার অন্যতম হচ্ছে বায়তুল মোকাদ্দাস বা মসজিদ আল-আকসা। মক্কা মুকাররামা ও মদিনা মুনাওয়ারাহর পরে ফিলিস্তিনের জেরুজালেম নগরে অবস্থিত বায়তুল মোকাদ্দাস হচ্ছে ইসলামের তৃতীয় পবিত্রতম স্থান ও মুসলমানদের প্রথম কিবলা। ইসলামের ইতিহাসের অনেক গুরুত্বপূর্ণ ঘটনার সঙ্গে এর সংশ্লিষ্টতা রয়েছে। অসংখ্য নবী-রাসুলের পদধূলিতে ধন্য এ নগর। এ মসজিদকে কেন্দ্র করে অসংখ্য নবী-রাসুলের দাওয়াতি মিশন পরিচালিত হয়েছে।
জুমাতুল বিদার বিশেষ তাৎপর্য এই যে রমযান মাসের শেষ শুক্রবার আল্লাহর নবী হজরত দাউদ (আ.)-এর পুত্র মহামতি হজরত সুলায়মান (আ.) জেরুজালেম নগর প্রতিষ্ঠা করেন এবং আল্লাহ তাআলার মহিমা তুলে ধরতে সেখানে পুনর্নিমাণ করে গড়ে তোলেন মুসলমানদের প্রথম কিবলা ‘মসজিদ আল-আকসা’। প্রতিবছর রমযান মাসের শেষ শুক্রবার সারা বিশ্বের ধর্মপ্রাণ মুসলমানগণ বায়তুল মোকাদ্দাসে ইহুদিদের অবৈধ দখলের বিরুদ্ধে ঘৃণা প্রকাশ করেন এবং ইহুদি রাষ্ট্র ইসরায়েলের কবল থেকে পবিত্র ভূমি ফিলিস্তিন রাষ্ট্রকে মুক্ত করার জন্য নতুন শপথ গ্রহণ করেন।
মাহে রমযানের সমাপনীসূচক জুমাতুল বিদার নামাজে মসজিদে বিশেষ মোনাজাতে রোজাদার মুসল্লিরা দেশ-জাতির উন্নয়ন, আল-কুদেসর মুক্তি এবং মুসলিম উম্মাহর ঐক্য, সংহতি, শান্তি ও কল্যাণের জন্য আল্লাহর দরবারে পরম ভক্তি ও আন্তরিকতা সহকারে ক্ষমা প্রার্থনা করেন। মসজিদে ইতিকাফ ছাড়াও এ দিনটি পবিত্র কোরআন তিলাওয়াত, নামাজ, দোয়া-ইস্তেগফার, তাসবিহ-তাহলিল, জিকির-আজকার ও দরুদ শরিফ পাঠ করার মধ্যে অতিবাহিত করা হয়। মাহে রমযানের রোজা কতটুকু সফল হলো, রোজার মাসে কতটুকু তাক্বওয়া অর্জিত হলো তা মূল্যায়নের দিবস হলো জুমাতুল বিদা। তাই সবাই মুক্তির আশায় আল্লাহর কাছে দোয়া করেছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ