বৃহস্পতিবার ০৬ আগস্ট ২০২০
Online Edition

মিরসরাইয়ে আওয়ামী লীগ যুবলীগ সংঘর্ষ আহত ৮

মিরসরাই (চট্টগ্রাম) সংবাদদাতা: চট্টগ্রামের মিরসরাইয়ে আওয়ামীলীগ ও যুবলীগের দুই নেতার অনুসারীদের মধ্যে সংঘর্ষে উভয় পক্ষের ৮জন আহত হয়েছে। গত বৃহস্পতিবার রাত ৮টার দিকে উপজেলার করেরহাট বাজারে এই সংঘর্ষেও ঘটনা ঘটেছে। আহতরা হলেন, জামাল উদ্দিন (৪০), মো: এমরান (২৮), মো. ইকবাল (২৪), মো. রাসেল (২২), রিদয় (২১), মো. শহিদ (২৬)।

জানা যায়, গত কয়েকদিন বালু ও গাছ ব্যবসা নিয়ে করেরহাট ইউনিয়নের স্থানীয় ৫নং ওয়ার্ড আওয়ামীরীগের সাধারন সম্পাদক জামাল উদ্দিন (প্রকাশ কালা জামাল) এবং যুবলীগ নেতা সাইফুল ইসলামের সাথে ফেইসবুকে দেয়া স্ট্যাটাসকে নিয়ে উত্তেজনা চলে আসছে।

সে বিরোধরে জের ধরে বৃহস্পতিবার রাতে করেরহাট বাজারে সংঘর্ষেও সূত্রপাত হয়। দা লাঠি, চুরি নিয়ে উভয় পক্ষে মধ্যে সংঘর্ষ ও ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া হয়। খবর পেয়েজোরারগঞ্জ থানা পুলিশ দ্রুত ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে।

আওয়ামী লীগ নেতা জামাল উদ্দিন অভিযোগ করেন, সাইফুল কয়েকদিন ধরে সেলিম নামে একজনকে দিয়ে আমার বিরুদ্ধে ফেইসবুকে অশ্লিল কথা লিখে সম্মানহানি করছে। এই বিষয়ে জিজ্ঞেস করতে গেলে আমার দলবল নিয়ে আমার উপর হামলা করে।

 যুবলীগ নেতা সাইফুল অভিযোগ করেন, পাহাড় কাটা, গাছ কাটার সাথে কালা জামালরা জড়িত। কিন্তু ষড়যন্ত্র করে আমার বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দিয়েছে। জামালের লোকজন আমার লোবজনের উপর হামলা করেছে।

 এ বিষয়ে জোরারগঞ্জ থানার সেকেন্ড অফিসার (এসআই) সিরাজ উদ্দিন জানান, আমরা খবর পেয়ে করেরহাট বাজারে ছুটে যাই। জামাল ও সাইফুল গ্রুপের মধ্যে মারামারি হলেও আমরা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নিয়ে আসি। এতে কয়েকজন আহত হয়েছে বলেও তিনি জানান।

 

এই বিষয়ে মিরসরাই উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি জাহাঙ্গীর কবির চৌধুরী বলেন, করোনার কারণে বিশ্ব মানবতা যখন হুমকির সম্মুক্ষিণ তখন ব্যবসায়িক কারণে এ ধরনের ঘটনা মেনে নেয়া যায় না। আমরা এই ব্যাপারে আইনগত ও সাংগঠনিক ব্যবস্থা গ্রহণ করবো।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ