সোমবার ১৩ জুলাই ২০২০
Online Edition

বিজেপির চাপেই আমাদের ৩ নেতার মৃত্যু : মমতা

১৯ ফেব্রুয়ারি, এনডিটিভি : অভিনেতা ও তৃণমূলে এমপি তাপস পাল, সুলতান আহমেদ এবং প্রসূন বন্দ্যোপাধ্যায়ের স্ত্রীর অকাল প্রয়াণ নিয়ে মুখ খুললেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

তাদের অপরাধ কোথায় ছিল তা তিনি জানতে চান বিজেপির কাছে। শুধু তাই নয়, তিনি আরও বলেন, বিজেপির চাপে পড়ে, রাজনৈতিক প্রতিহিংসায় ক্ষতবিক্ষত হয়ে গেছে আমাদের তিনজন। 

গতকাল বুধবার সকালে প্রথমে টেকনিশিয়ান স্টুডিওতে নিয়ে যাওয়া হয় অভিনেতা তাপস পালের মরদেহ। সেখানে ১০ মিনিট তার মরদেহ রাখা ছিল।

এর পর সেখান থেকে তার মরদেহ নিয়ে আসা হয় রবীন্দ্র সদনে। সবার শ্রদ্ধাজ্ঞাপনের জন্য রবীন্দ্র সদনেই বেলা ১টা পর্যন্ত রাখা হয় তার মরদেহ। রবীন্দ্র সদনে তাকে শেষ শ্রদ্ধা জানান মুখ্যমন্ত্রী মমতা।

রবীন্দ্র সদনে তাপস পালকে শেষ শ্রদ্ধা জানাতে এসে কেন্দ্রীয় সরকারের বিরুদ্ধে তোপ দাগেন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি আরও বলেন, কেন্দ্রীয় সরকারের জঘন্য প্রতিহিংসাপরায়ণ নীতির জন্য সুলতান আহমেদ, প্রসূন বন্দ্যোপাধ্যায়ের স্ত্রীর এবং আমাদের তাপসের অকাল প্রয়াণ হয়েছে।

যে অন্যায় করবে তার নিশ্চয়ই বিচার হওয়া উচিত। তাই বলে মানসিক লাঞ্ছনা, গঞ্জনা সহ্য করে দুর্দশাগ্রস্ত অবস্থায় তাদের এই অকালে ফুরিয়ে যাওয়া মেনে নেয়া যায় না। মুখ্যমন্ত্রী আরও বলেন, শিল্পীরা তো কাজ করবেই। বিভিন্ন চ্যানেল, প্রোডাকশন হাউস এবং ব্র্যান্ড আম্বাসাডর হিসেবে বিভিন্ন সময়ে সেই কাজ করতে গিয়ে তাদের জীবন দুর্বিষহভাবে অকালে ঝরে যাচ্ছে।

এদিন রবীন্দ্র সদনে উপস্থিত হয়ে প্রথমে তাপস পালের মরদেহে শেষ শ্রদ্ধা জানান মুখ্যমন্ত্রী। তার পরে সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে তিনি বলেন, বিজেপির চাপে তাপস পাল আজকে ফুরিয়ে গেল, তার তো এ সময় যাওয়ার কথা নয়।

তাপসের মুখের দিকে তাকাতে পারছি না। অসময়ে দামি প্রাণ গুলো চলে যাচ্ছে। মুখ্যমন্ত্রী বিশিষ্ট এই অভিনেতাকে শেষ শ্রদ্ধা জানানোর পাশাপাশি তার স্ত্রী, মেয়ে এবং টলিউডের সব কলাকুশলীকেও সমবেদনা জানান।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ