মঙ্গলবার ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২০
Online Edition

শহীদ জিয়া বহুদলীয় রাজনীতির জনক -ডাঃ ইরান

শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমনের জন্ম না হলে ১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস ভিন্ন হতো দাবী করে বাংলাদেশ লেবার পার্টির চেয়ারম্যান ডাঃ মোস্তাফিজুর রহমান ইরান বলেছেন, যারা মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস বিকৃত করতে চায় তারা ইতিহাসের আস্থাকুড়ে নিক্ষিপ্ত হবে। বিএনপি মুক্তিযোদ্ধার দল আখ্যা দিয়ে ডাঃ ইরান বলেন, মুক্তিযুদ্ধের ঘোষক ও সেক্টর কমান্ডার জিয়াউর রহমান স্বাধীনতা সংগ্রামের বিশেষ অবদানের জন্য সর্বোচ্চ বীরউত্তম খেতাবধারী। তিনি অবরুদ্ধ গণতন্ত্র ও গণমাধ্যমকে মুক্ত করেছেন। একদলীয় বাকশালী ব্যবস্থাকে কবর দিয়ে বহুদলীয় রাজনীতির উম্মেষ ঘটিয়েছিলেন। শহীদ জিয়া বহুদলীয় রাজনীতি চালু না করলে বাংলদেশে বর্তমান আওয়ামী লীগ, বিএনপি, জামায়াত, জাতীয় পার্টি, লেবার পার্টিসহ কোন রাজনৈতিক দলের জন্ম হতো না। তাই জিয়াউর রহমানই বহুদলীয় রাজনীতির জনক। গতকাল শনিবার বিকাল ৪টায় জাতীয় প্রেসক্লাবে বাংলাদেশ সাম্যবাদী দল (এম. এল.) আয়োজিত কমরেড তোহায়ার ৩২তম মৃত্যুবার্ষিকীতে স্মরণ সভায় প্রধান বক্তার বক্তব্যে তিনি একথা বলেন। সাম্যবাদী দলের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক কমরেড সৈয়দ নুরুল ইসলামের সভাপতিত্বে সভায় জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান মোস্তাফা জামাল হায়দায়, নিউনেশন সাবেক সম্পাদক মোস্তফা কামাল মজুমদার, কমরেড মোস্তফা কামাল, বাংলাদেশ ছাত্রমিশন সভাপতি সৈয়দ মোঃ মিলন প্রমুখ বক্তব্য রাখেন। প্রেস বিজ্ঞপ্তি।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ