শনিবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১
Online Edition

ভারসাম্যপূর্ণ ও টেকসই উন্নয়নের আন্তর্জাতিক লক্ষ্য অর্জনে বাংলাদেশ দ্রুত এগিয়ে যাচ্ছে

চট্টগ্রাম চেম্বার সভাপতি মাহবুবুল আলম বলেছেন, ভারসাম্যপূর্ণ ও টেকসই উন্নয়নের যে আন্তর্জাতিক লক্ষ্য তা অর্জনে বাংলাদেশ দ্রুত এগিয়ে যাচ্ছে। চট্টগ্রাম চেম্বারেরও বিজনেস ইনোভেশন প্রোগ্রাম রয়েছে আইআইইউসি’র কনফারেন্সের থিমের সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ। তিনি বলেন, আইআইইউসি’র এই কনফারেন্সের থিম বাংলাদেশসহ উন্নয়নশীল দেশের বর্তমান চাহিদার উপযোগী যা সাধুবাদ পাওয়ার যোগ্য।

   গত রোববার রাতে আন্তর্জাতিক ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয় চট্টগ্রাম (আইআইইউসি)-এর ব্যবসায় শিক্ষা অনুষদ এবং গবেষণা ও প্রকাশনা কেন্দ্রের যৌথ আয়োজনে আইআইইউসি’র ত্রয়োদশ ইন্টারন্যাশনাল কনফারেন্সের সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে চট্টগ্রাম চেম্বার সভাপতি মাহবুবুল আলম এ অভিমত ব্যক্ত করেন। অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন আইআইইউসি’র প্রো ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মোহাম্মদ আলী আজাদী। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন আইআইইউসি’র ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর কে. এম. গোলাম মহিউদ্দীন। স্বাগত বক্তব্য রাখেন কনফারেন্সের অর্গানাইজিং কমিটির চেয়ার আইআইইউসি’র ট্রেজারার প্রফেসর ড. আবদুল হামিদ চৌধুরী, কো-চেয়ার ব্যবসায় শিক্ষ অনুষদের ডীন প্রফেসর ড. মুহাম্মদ মাহবুবুর রহমান, গবেষণা ও প্রকাশনা কেন্দ্রের পরিচালক ড. মোহাম্মদ আক্তারুজ্জামান খান এবং মেম্বার সেক্রেটারী ড. মোঃ মাহি উদ্দিন। এ ছাড়াও বক্তব্য রাখেন কনফারেন্সের ৫ জন কী-নোট স্পিকার মালয়েশিয়ার ইউনিভার্সিটি অব মালয়ার এশিয়া-ইউরোপ ইনস্টিটিউটের প্রফেসর ড. রাজা আল রাসিয়াহ, ইউনিভার্সিটি সেইন্স ইসলাম মালয়েশিয়ার প্রফেসর দাতিন ড. সাপোরা সিপন, যুক্তরাজ্যের ইউনিভার্সিটি অব হাল এর বাণিজ্য, আইন ও রাজনীতি অনুষদের প্রফেসর ড. গুঞ্জন সাকসেনা, ইন্টারন্যাশনাল ইসলামিক ইউনিভার্সিটি অব মালয়েশিয়ার অর্থনীতি ও ব্যবস্থাপনা বিজ্ঞান অনুষদের ডীন প্রফেসর ড.হাসানুদ্দিন আবদ আজিজ এবং দক্ষিণ কোরিয়ার ইনহা ইউনিভার্সিটির টেকসই ব্যরস্থাপনা ইনস্টিটিউটের প্রফেসর ড. জং দ্যা কিম।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে চট্টগ্রাম চেম্বার সভাপতি মাহবুবুল আলম বলেন, একাত্তরের স্বাধীনতা সংগ্রামের পর চট্টগ্রাম ও ঢাকার মধ্যে কোন তফাৎ ছিলনা। কিন্তু সবকিছু কেন্দ্রীভূত করার নীতির কারণে চট্টগ্রাম অনেক পিছিয়ে পড়েছে। অথচ বন্দর নগরী চট্টগ্রাম শত বছরের বাণিজ্যিক ঐতিহ্যের পথিকৎ।   অতিথির বক্তব্যে আইআইইউসি’র প্রো ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মোাহাম্মদ আলী আজাদী বলেন, দারিদ্র্য নিয়ে গবেষণা করে অনেকেই নোবেল পুরস্কার পেলেও দারিদ্র্য বিমোচন হচ্ছে না। ধনী আরো ধনী হচ্ছে, গরীব আরো গরীব হচ্ছে। এটাই হলো আজকের বৈশ্বিক বাস্তবতা। তিনি বলেন, মহান স্রষ্টা দারিদ্র্য বিমোচনে যে সুন্দর দিকনির্দেশনা দিযেছেনে, যে যাকাত ব্যবস্থাপনা, আড়াই শতাংশ আদায়ের কথা বলেছেন সেই বিষয়টাকে বিবেচনায় এনে বিজনেস ইনোভেশন এবং একাডেমিক গবেষণা করা এখন সময়ের দাবী হয়ে উঠেছে।

   সভাপতির বক্তব্যে আইআইইউসি’র ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর কে. এম. গোলাম মহিউদ্দীন বলেন, শীর্ষস্থানীয় পন্ডিত ও গবেষকদের অংশগ্রহণে এই সম্মেলনের সুপারিশ দারিদ্র্যের বিরুদ্ধে সংগ্রাম করতে, অসাম্য কমাতে এবং ভারসাম্যপূর্ণ উন্নয়ন নিশ্চিত করতে সহায়ক হবে। প্রেস বিজ্ঞপ্তি।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ