শুক্রবার ২৭ নবেম্বর ২০২০
Online Edition

কানাডায় গ্লোবাল লিগে চ্যাম্পিয়ন উইনিপেগ হকস

কানাডায় অনুষ্ঠিত গ্লোবাল টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্টের মেগা ফাইনালে সুপার ওভারে শোয়েব মালিকের দল ভ্যাঙ্কুভার নাইটসকে হারিয়ে চ্যাম্পিয়ন হলো উইনিপেগ হকস। রোববার রাতে ব্রাম্পটনের সিএএ সেন্টোরে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে শাইমান আনোয়ারের বিধ্বংসী ৪৫ বলে ৯০ রানের ওপর ভর করে ভ্যাঙ্কুভারের ওপর ১৯৩ রানের বড় লক্ষ্যমাত্রা ছুঁড়ে দেয় উইনিপেগ হকস।জবাবে রান তাড়া করতে নেমে ৫৩ রানে ৪ উইকেট খুঁইয়ে বড় বিপদে পড়ে যায় শোয়েব মালিকের দল ভ্যাঙ্কুভার নাইটস। সেখান থেকে অধিনায়ক শোয়েব মালিকের ৩৬ বলে ৬৪ রানের ইনিংস তাদের ম্যাচে ফেরালেও শেষ ১৯ বলে ৫৪ রান প্রয়োজন হয়ে পড়ে ভ্যাঙ্কুভারের।এ অবস্থায় জ্বলে ওঠেন আন্দ্রে রাসেলের ব্যাট। ২০ বলে তার অপরাজিত ৪৬ রানের ইনিংসের ওপর ভর করে নির্ধারিত ২০ ওভারে সম সংখ্যক রানে শেষ হয় ভ্যাঙ্কুভারের ইনিংস। শেষ পর্যন্ত ম্যাচ গড়ায় সুপার ওভারে। থ্রিলার ম্যাচে সুপার ওভারে যদিও বাজিমাত করে যায় উইনিপেগ। ২ উইকেট হারিয়ে ৬ বলে মাত্র ৯ রান তুলতে সমর্থ হয় ভ্যাঙ্কুভার নাইটস। ৭ রান আসে রাসেলের ব্যাট থেকে। ২ বল বাকি থাকতেই সেই রান তুলে নেয় উইনিপেগ হকস। ব্যর্থ হয়ে যায় রাসেলের বিধ্বংসী ইনিংস। গ্লোবাল টি-টোয়েন্টির প্রথম সংস্করণের শিরোপা দখল করে নেয় ক্রিস লিন, জেপি ডুমিনিদের দল উইনিপেগ হকস। উইনিপেগ হকসের সাইমান আনোয়ারকে নিয়েও আলাদা করে বলতে হয়। প্রথমে ব্যাট করে এ দিন চ্যাম্পিয়ন দলের হয়ে ৯০ রানের ধামাকা ইনিংস খেলে দলকে ২০০ রানের দোরগোড়ায় নিয়ে যেতে সাহায্য করেন সংযুক্ত আরব আমিরাতের এই ব্যাটসম্যান। ২০০ স্ট্রাইক রেটে তার ৪৫ বলের ইনিংস সাজানো ছিল ৮টি বাউন্ডারি এবং ৭টি ছক্কায়। এছাড়াও লিনের ২১ বলে ৩৭ ও ডুমিনির ২৭ বলে ৩৩ রান উইনিপেগকে বড় রান তুলতে সাহায্য করে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ