শনিবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১
Online Edition

চাকরি দেয়ার কথা বলে ১৫লাখ টাকা নিয়ে উধাও

লালমনিরহাট সংবাদদাতা : সেনা বাহিনীতে চাকরি দেয়ার কথা বলে কৌশলে চাকরি প্রত্যাশী ৬ জনের কাছ থেকে নগদ ১৫লাখ টাকা নিয়ে উধাও হয়েছে ফারুক  (৪৫) নামে এক প্রতারক। ভুক্তভোগী ৬ চাকরি প্রত্যাশীরা হলেন, পটুয়াখালী সদর উপজেলার শহিদুল ইসলামের ছেলে আলামিন, একই জেলার রশিদ হাওলাদারের ছেলে সাইফুল ইসলাম, একই এলাকার রশিদ সামাদের ছেলে  আব্দুর রাজ্জাক, ইউনুস চকিদারের ছেলে জামাল মিয়া, জামাল চকিদারের ছেলে আব্দুল বারেক ও রহিম হাওলাদারের ছেলে রিয়াজ উদ্দিন। ভুক্তভোগিরা সকলেই উপজেলার লাওপাটি ও বদরপুর ইউনিয়নের বিভিন্ন এলাকার বাসিন্দা। জানাগেছে, গত বছরের সেপ্টেম্বর মাসে ৬জনের মধ্যে এক ভুক্তভোগী পটুয়াখালীর সাইফুল ইসলামের পিতা রশিদ হাওলাদারের সাথে লালমনিরহাট জেলা শহরের বটতলা এলাকায় ওই প্রতারক ফারুকের পরিচয় হয়। তখন ফারুক নিজেকে মেজর মাসুদের নিকট আত্মীয় ও বাড়ি যশোর জেলায় বলে পরিচয় দেয়। পরবর্তিতে ধীরে ধীরে ২ জনের সম্পর্ক আরো গভীর হয়। ওই সম্পর্কের সুত্র ধরে কৌশলে ফারুক সেনা বাহিনীতে চাকরি দেয়ার কথা বলে। পরে রশিদ হাওলাদারের ছেলে সাইফুল ইসলামসহ ৬জনের কাছ থেকে মোট ১৫ লাখ টাকা সেনা বাহিনীতে চাকরি দেয়ার কথা বলে হাতিয়ে নিয়ে আত্মগোপন করে। চাকরি প্রত্যাশিরা সকলেই পটুয়াখালী সদর উপজেলার লাওপাটি ও বদরপুর ইউনিয়নের বিভিন্ন এলাকার বাসিন্দা। এদের মধ্যে ভুক্তভোগী আলামিনের কাছ থেকে ১লাখ টাকা, সাইফুল ইসলামের কাছে ৪লাখ,  আব্দুর রাজ্জাকের কাছে ৪লাখ, জামাল মিয়ার কাছে ২লাখ, আব্দুল বারেকের কাছে ২লাখ এবং রিয়াজ উদ্দিনের কাছ থেকে ২লাখ টাকা নিয়েছে। পরবর্তীতে ভুক্তভোগীরা খোজ নিয়ে জানতে পারেন প্রতারক ফারুক মিথ্যা ঠিকানা দিয়ে চাকরির নামে টাকা হাতিয়ে নিয়েছে। আসলে ফারুকের বাড়ি পিরোজপুর জেলার সাপা ইউনিয়নে। এ ব্যাপারে ভুক্তভোগীরা থানায় পৃথক পৃথক সাধারন ডায়েরী করেছে বলে মঙ্গলবার সাংবাদিকদের এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ