শনিবার ০৫ ডিসেম্বর ২০২০
Online Edition

২৩ ফুটবলার নিয়ে আজ থাইল্যান্ড যাচ্ছে জেমী ডে

 

স্পোর্টস রিপোর্টার: কাতার ২০২২- ফিফা বিশ্বকাপ ফুটবলের বাকি এখনো তিন বছর। কিন্তু বাংলাদেশের বিশ্বকাপ মিশন শুরু হচ্ছে ৬ জুন লাওসের বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে। এটি বিশ্বকাপ বাছাইয়ের এশিয়া অঞ্চলের প্রথম পর্বের ম্যাচ। বাংলাদেশ বিশ্বকাপ মিশন শুরু করছে লাওসের ভিয়েনতিয়েন থেকে। ফিরতি ম্যাচ ১১ জুন ঢাকায়। রাশিয়া বিশ্বকাপের বাছাইয়ের দ্বিতীয় রাউন্ড থেকে শুরু করেছিল বাংলাদেশ। ফিফা র‌্যাংকিংয়ে পিছিয়ে পড়ায় এবার শুরু করতে হচ্ছে আরেক ধাপ নিচ থেকে। হোম অ্যান্ড অ্যাওয়ে ভিত্তিতে বাংলাদেশ সুযোগ পাবে পরের রাউন্ডে ওঠার। যেখান থেকে চার বছর আগে বিশ্বকাপ বাছাই শুরু করেছিল লাল-সবুজ জার্সিধারীরা।

 ছুটি কাটিয়ে গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে ঢাকায় ফিরেছেন ইংলিশ কোচ জেমি ডে। দুপুরে কিছু সময় বিশ্রাম। আর বিকেলে আনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলনে লাওসের বিরুদ্ধে লাওসের বিরুদ্ধে ম্যাচের ২৩ সদস্যের স্কোয়াড ঘোষণা করেছেন তিনি। এসময় অধিনায়ক জামাল ভূঁইয়া ও ন্যাশনাল টিমস কমিটির ভাইস চেয়ারম্যান তাবিথ আউয়াল ও বাফুফের সাধারণ সম্পাদক আবু নাঈম সোহাগ উপস্থিত ছিলেন।

বাংলাদেশ দলের সাবেক অধিনায়ক মামুনুল ইসলাম মামুন চূড়ান্ত দলে ফিরেছেন। মাঝে কম্বোডিয়া ম্যাচের প্রাথমিক দলে থাকলেও মূল স্কোয়াডে থাকতে পারেননি। কম্বোডিয়ার বিপক্ষে শেষ আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচের চূড়ান্ত দল থেকে বাদ পড়েছেন শেখ রাসেলের মিডফিল্ডার মোহাম্মদ সোহেল রানা। 

এ ছাড়া চোটের কারণে দল থেকে ছিটকে পড়েছেন ডিফেন্ডার তপু বর্মন ও মিডফিল্ডার আতিকুর রহমান ফাহাদ। আরামবাগ ক্রীড়া সংঘের উসাইন বোল্ট খ্যাত আরিফুর রহমান ইনজুরি সেরে মাঠে নেমেছেন। আরিফ সুযোগ পেয়েছেন চূড়ান্ত দলে। বসুন্ধরা কিংসের ইমন বাবুও ইনজুরি কাটিয়ে ফিরেছেন লাল-সবুজ শিবিরে। এবারের দলে অভিষেক হতে যাচ্ছে ডিফেন্ডার রিয়াদুল ইসলাম রাফিও। গোলরক্ষক শহীদুল আলম সোহেল ইনজুরির কারণে চূড়ান্ত স্কোয়াড থেকে ছিটকে গেছে। তার জায়গায় দলে যুক্ত হয়েছেন আরামবাগের গোলরক্ষক মাজাহারুল ইসলাম হিমেল। এই ২৩ ফুটবলার নিয়ে আজ শুক্রবার দুপুর ১টায় থাইল্যান্ডের উদ্দেশ্যে ঢাকা ছাড়বে জেমীর দল। থাইল্যান্ডে ১০ দিন ক্যাম্প করবেন জামাল ভুঁইয়ারা এবং স্থানীয় দুটি ক্লাবের বিরুদ্ধে খেলবে দুটি প্রস্তুতি ম্যাচ। তারপর ৩ জুন থাইল্যান্ড থেকে বাংলাদেশ দল যাবে লাওস।

বিশ্বকাপ বাছাইয়ে বাংলাদেশ স্কোয়াড: গোলরক্ষক: আশরাফুল ইসলাম রানা, আনিসুর রহমান জিকো ও মাজহারুল ইসলাম হিমেল। রক্ষণভাগ: টুটুল হোসেন বাদশা, সুশান্ত ত্রিপুরা, বিশ্বনাথ ঘোষ, ইয়াসিন খান, রহমত মিয়া, রিয়াদুল হাসান, নাসিরউদ্দিন চৌধুরী। মাঝমাঠ: ইমন মাহমুদ, সোহেল রানা, জামাল ভূঁইয়া, রবিউল হাসান, মাসুক মিয়া জনি, মামুনুল ইসলাম। আক্রমনভাগ: নাবিব নেওয়াজ জীবন, মাহবুবুর রহমান সুফিল, মতিন মিয়া, তৌহিদুল আলম সবুজ, মোহাম্মদ ইব্রাহিম, বিপলু আহমেদ ও আরিফুর রহমান।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ