মঙ্গলবার ২২ সেপ্টেম্বর ২০২০
Online Edition

পাকিস্তানের বিলাসবহুল হোটেলে হামলায় হতাহতের সংখ্যা বেড়ে ৭

১২ মে, ডন : পাকিস্তানের বেলুচিস্তান প্রদেশের পাঁচ তারকা হোটেলে বন্দুকধারীদের হামলায় হতাহতের সংখ্যা বেড়ে সাত জনে দাঁড়িয়েছে। গত শনিবার বেলুচিস্তান প্রদেশের গুয়াদার শহরের পার্ল কন্টিনেন্টাল (পিসি) নামের ওই পাঁচ তারকা হোটেলে চালায় বন্দুকধারীরা। এ সময় বন্দুকধারীদের হাতে নিহত হন তিন নিরাপত্তাকর্মী। আহত হন আরও চারজন। গতকাল রবিবার এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে পাকিস্তানভিত্তিক সংবাদমাধ্যম।

এর আগে শনিবার প্রাথমিকভাবে একজনের প্রাণহানির খবর দেওয়া হয়েছিল। হামলার পর বিলাসবহুল হোটেলটিতে অবস্থানরতদের নিরাপদে বের করে আনা হয়। স্থানীয়রা জানিয়েছেন, হোটেলে সন্ত্রাসীরা প্রবেশের সময় বেশ কয়েকটি গুলির শব্দ শোনা গেছে।

বিলাসবহুল পার্ল কন্টিনেন্টাল হোটেলটি বন্দর নগরী গুয়াদারে অবস্থিত। কোটি ডলারের চীন-পাকিস্তান অর্থনৈতিক করিডোর প্রকল্পে গুরুত্বপূর্ণ অবস্থান রয়েছে হোটেলটির।

গুয়াদার থানার কর্মকর্তা আসলাম বাংগুলজাই জানান, পার্ল কন্টিনেন্টাল হোটেলে বিকাল ৪টা ৫০ মিনিটে ৩ থেকে ৪ জন বন্দুকধারী হামলা চালায়।

পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) মোহসিন হাসান বাট জানান, বন্দুকধারীরা গুলি করতে করতে হোটেলে প্রবেশ করেছে। হামলার সময় সেখানে কোনও বিদেশি নাগরিক ছিলেন না। যারা ছিলেন তারা সবাই হোটেলের কর্মী। ওই ঘটনায় সেখানে অবস্থানরত ৯৫ শতাংশ মানুষকে বের করে আনতে সক্ষম হয় নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা। এদিকে এ হামলার দায় স্বীকার করেছে বেলুচিস্তান লিবারেশন আর্মি (বিএলএ)। বিদ্রোহী গোষ্ঠীটি দাবি করেছে, তারা চীনা ও বিদেশি বিনিয়োগকারীদের ওপর হামলা চালিয়েছে।

বিএলএর’র মুখপাত্র জুনায়েদ বালুচ জানান, চীনা ও বিদেশি বিনিয়োগকারীদের লক্ষ্য করেই হোটেলেটিতে হামলা চালানো হয়েছে। তাদের দাবি, চীনা বিনিয়োগে স্থানীয়দের খুব বেশি উপকার হবে না। তাই তারা এই বিনিয়োগের বিরোধিতা করছে।

এর আগে ২৮ নভেম্বর করাচিতে চীনা কনস্যুলেট ভবনেও হামলা চালায় বিএলএ। তবে নিরাপত্তাবাহিনীর সদস্যরা তা নস্যাৎ করে দেয়।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ