রবিবার ০৯ আগস্ট ২০২০
Online Edition

রাজশাহীতে ছিনতাইয়ের অভিযোগে তিন পুলিশ বরখাস্ত ॥ দুই জেএমবি গ্রেফতার ॥ গৃহবধূর লাশ উদ্ধার

রাজশাহী অফিস : রাজশাহীতে ছিনতাইয়ের অভিযোগে আরএমপির তিন পুলিশ সদস্যকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। গোদাগাড়ীতে দুই জেএমবি সদস্যকে গ্রেফতার করা হয়েছে। এছাড়া কাটাখালিতে এক গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করা হয়েছে।
নির্যাতন ও ভয় দেখিয়ে টাকা ছিনতাইয়ের অভিযোগে রাজশাহী মহানগর পুলিশের (আরএমপি) একজন এএসআইসহ তিন পুলিশকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। গত সোমবার বিকেলে আরএমপি কমিশনার হুমায়ুন কবীর তাদের বরখাস্তের আদেশ দেন। এরপর তিন পুলিশকে রাজপাড়া থানা থেকে লাইনে প্রত্যাহার করা হয়।
সাময়িক বরখাস্ত হওয়া এএসআই শরীফুল ইসলাম এবং দুই কনস্টেবল মনিরুল ইসলাম ও সুজন আলী নগরীর রাজপাড়া থানায় কর্মরত ছিলেন। আরএমপির সূত্র জানায়, একজন ভুক্তভোগীর লিখিত অভিযোগ পাওয়ার পর একজন উপ-কমিশনার (ডিসি) অভিযোগ তদন্ত করেন। এতে এর প্রাথমিক সত্যতা পাওয়া যায়। তাই তাদের সাময়িক বরখাস্তের আদেশ দেন আরএমপি কমিশনার। এখন বিষয়টি আরো গুরুত্বের সঙ্গে তদন্ত করা হবে। এর উপর ভিত্তি করে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে স্থায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে। এএসআই শরীফুল ইসলামের বিরুদ্ধে গত ২৯ এপ্রিল চাঁপাইনবাবগঞ্জের হরিপুর সাহাপাড়ার আবদুল হাকিম মানিক নামে এক ব্যক্তি পুলিশ কমিশনারের কাছে লিখিত অভিযোগ দেন। এতে জানানো হয়, গত ২৮ এপ্রিল এএসআই শরীফুলের নেতৃত্বে পুলিশের একটি দল নগরীর ডাবতলা এলাকায় তার ভাই হার্টের রোগী মো. সালাহউদ্দীনকে নির্যাতন করেন ও মামলার ভয়ভীতি দেখিয়ে তিন হাজার টাকা কেড়ে নেয়। এ ছাড়া মোবাইলের বিকাশের মাধ্যমে পরে নেয়া হয় আরো চার হাজার টাকা। হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে সালাহউদ্দিন রাজশাহীতে চিকিৎসা করাতে এসে পুলিশের হাতে এভাবে ছিনতাইয়ের শিকার হন। মানিক বলেন, তিন পুলিশের কাছে থাকা একটি মোটরসাইকেলের নম্বরের সূত্রে তাদের শনাক্ত করা হয়। কারণ তিন পুলিশ সাদাপোশাকে ছিলেন।
গৃহবধূর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার : রাজশাহী কাটাখালির কিসমতকুখ-ী এলাকায় আয়েশা সিদ্দিকা (৩৫) নামের এক গৃহবধূ গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন। তিনি ঐ এলাকার সমজান আলীর স্ত্রী। পারিবারিক কোন অভিমান থেকে সোমবার রাতের কোন এক সময় সিলিং ফ্যানের সঙ্গে ওড়না বেঁধে গলায় ফাঁস দিয়ে তিনি আত্মহত্যা করেন বলে কাটাখালি থানার পলিশের ধারণা।
দুই জেএমবি গ্রেফতার : রাজশাহীতে নিষিদ্ধ ঘোষিত জেএমবি’র দুই সদস্যকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব। গত ৩০ এপ্রিল মঙ্গলবার দিবাগত রাতে জেলার গোদাগাড়ী উপজেলায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়। এরা হলেন উপজেলার সাতকুন্ডি গ্রামের এরশাদ মোড়লের ছেলে কামাল হোসেন (৪৪) ও দিয়াড়মানিক চক গ্রামের আমিনুল ইসলামের ছেলে সাইফুল ইসলাম (৩০)। এদের মধ্যে কামালকে উপজেলার উজানপাড়া এবং সাইফুলকে নিজ গ্রাম থেকে গ্রেফতার করা হয়। র‌্যাব-৫ এর একজন কর্মকর্তা জানান, জেএমবির এই দুই সক্রিয় ক্যাডারের কাছ থেকে বই, হ্যান্ডনোট, লিফলেট, মোবাইল সেট প্রভৃতি জব্দ করে তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ