শুক্রবার ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২০
Online Edition

আমাকে হারানোর মতো কেউ নেই-----------মোদি

১ এপ্রিল, এনডিটিভি : ভারতের আসন্ন লোকসভা নির্বাচনে ক্ষমতাসীন জোট আবারও সংখ্যাগরিষ্ঠ আসন পাবে বলে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। যদিও নির্বাচন সংক্রান্ত বেশ কিছু বিশ্লেষণে দেখা যাচ্ছে বেকারত্ব সমস্যা সমাধানে ব্যর্থ ও ব্যক্তিগত আয় হতে পারে মোদির পরাজয়ের কারণ। বিশ্বের বৃহত্তম গণতন্ত্রের দেশ ভারতের লোকসভা নির্বাচনের ভোটগ্রহণ আগামী ১১ এপ্রিল শুরু হয়ে শেষ হবে ১৯ মে। সাত ধাপের নির্বাচনের ফলাফল ঘোষণা হবে ২৩ মে। ইনকিলাব।

শুক্রবার রিপাবলিক ভারত টেলিভিশন চ্যানেলে দেয়া সাক্ষাৎকারে মোদি নির্বাচনে তার দলের সহজ জয়ের আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি বলেন, ‘ভারতীয় জনতা পার্টি (বিজেপি) নেতৃত্বাধীন ন্যাশনাল ডেমোক্র্যাটিক অ্যালায়েন্সের জোট শরিকরা বিগত লোকসভা নির্বাচনের চেয়েও এবার বেশি আসনে জয়ী হবে।’ মোদির নেতৃত্বাধীন কট্টর হিন্দুত্ববাদী দল বিজেপি ও তার জোট শরিকরা ২০১৪ সালের নির্বাচনে গত ত্রিশ বছরের মধ্যে রেকর্ডসংখ্যক আসনে জয়ী হয়। কংগ্রেস নেতৃত্বাধীন তৎকালীন ক্ষমতাসীন সরকার ভঙ্গুর অর্থনীতি চাঙ্গা করতে ব্যর্থ হওয়ায় হেরে যায়। নরেন্দ্র মোদির শাসনামলে অবশ্য দেশটির অর্থনীতি অনেকটা চাঙ্গা হয়েছে। কিন্তু মানুষের ব্যক্তিগত আয়ের পরিমাণ অনেক হ্রাস পেয়েছে যা ভারতের বেশিরভাগ মানুষকে অসুখী করেছে। বিজেপির দলীয় নেতাকর্মীদের দুর্নীতি, কৃষিপণ্যের মূল্যের অস্বাভাবিক নিম্নগতি, বেকারত্বের হার বৃদ্ধি, প্রতিবেশী পাকিস্তানের সঙ্গে সম্পর্কে উত্তেজনাসহ নানা কারণে জনপ্রিয়তা কমছে বলে বিভিন্ন সময় খবর বেরিয়েছে। বছরের শুরুতেও বিভিন্ন জনমত জরিপেও ভারতের এবারের নির্বাচনে হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ের আভাস পাওয়া গিয়েছিল।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ