বুধবার ১২ আগস্ট ২০২০
Online Edition

উপজেলা নির্বাচন বর্জনের ঘোষণা বাম ঐক্যের

স্টাফ রিপোর্টার: বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টি-মার্কসবাদী’র সাধারণ সম্পাদক ও গণতান্ত্রিক বাম ঐক্য’র সমন্বয়ক কমরেড ডা. এম.এ সামাদ বলেছেন, সর্বস্তরের মানুষ ভোট ও ভাতের অধিকার আদায়ের জন্য শাসক শ্রেণির বিরুদ্ধে রাজপথে আন্দোলন-সংগ্রাম করে আসছে। তিনি উপজেলা নির্বাচন বর্জন, দল হিসেবে জামায়াতের রাজনীতি নিষিদ্ধ ও তাদের সম্পদ বাজেয়াপ্তের দাবি জানিয়েছেন।
গতকাল মঙ্গলবার সকালে রাজধানীর তোপখানা রোডস্থ কমরেড নির্মল সেন মিলনায়তনে গণতান্ত্রিক বাম ঐক্যের উদ্যোগে সাংবাদিক সম্মেলনে তিনি লিখিত বক্তব্যে এসব কথা বলেন। উপস্থিত ছিলেন বাম ঐক্য’র শরীক দল বাংলাদেশের সাম্যবাদী দল- এম.এল’র সম্পাদক কমরেড হারুন চৌধুরী, বাংলাদেশের মজদুর পার্টির সাধারণ সম্পাদক কমরেড সামছুল আলম ও জোটের শীর্ষ নেতৃবৃন্দ। সাংবাদিক সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন গণতান্ত্রিক বাম ঐক্য’র সমন্বয়ক কমরেড ডা. এম.এ সামাদ।
বাম ঐক্যর সমন্বয়ক বলেন, বিগত সংসদ নির্বাচনের পূর্বেও আমরা দলনিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচনের দাবি করেছিলাম। বিগত ৭ নভেম্বর বাম ঐক্য প্রধানমন্ত্রীর ডাকে সংলাপেও অংশগ্রহণ করেছিল। তিনি আশ্বাস দিয়েছিলেন নির্বাচন অবাধ ও সুষ্ঠু হবে সেই পরিপ্রেক্ষিতে আমরা বিগত ৩০ ডিসেম্বর জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেছিলাম। কিন্তু পুরো জাতি দেখলো বিগত নির্বাচনটি হয়েছে একটি প্রহসনমূলক নির্বাচন। নির্বাচনের নামে ভোটের আগের দিন রাতেই ভোট ডাকাতি হয়ে গিয়েছে। এই ভোট জনগণের দেওয়া ভোট না।
তিনি বলেন, এদেশে কোন দলীয় সরকারের অধীনে অবাধ ও সুষ্ঠু হতে পারে না। তাই গণতান্ত্রিক বাম ঐক্য আসন্ন উপজেলা নির্বাচনে অংশগ্রহণ করবে না। আমরা দাবি করছি ভূয়া ভোটে নির্বাচিত বর্তমান সরকার অবিলম্বে পদত্যাগ করে দলনিরপেক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচনের ব্যবস্থা করবেন।
তিনি আরও বলেন, গণতান্ত্রিক বাম ঐক্য দীর্ঘদিন যাবৎ যুদ্ধাপরাধীদের বিচার, দল হিসেবে জামায়াতের রাজনীতি নিষিদ্ধ ও তাদের স্থাবর-অস্থাবর সকল সম্পত্তি রাষ্ট্রের অনুকূলে বাজেয়াপ্তের দাবিতে আন্দোলন করে আসছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ