সোমবার ১০ আগস্ট ২০২০
Online Edition

দুই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সহস্রাধিক শিক্ষার্থী

শালিখা (মাগুরা) সংবাদদাতা: মাগুরা শালিখার দুইটি সরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সহস্রাধিক শিক্ষার্থী  প্রতিদিন বিদ্যালয়ের উদ্দ্যেশে প্রাণের ঝুঁকি নিয়ে পাড়ি দিচ্ছে মাগুরা-যশোর মহাসড়ক। উপজেলার স্বনামধন্য দুইটি সরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীদের দাবি একটি ওভার মিনিপাস গেটের সম্মুখে। জানা যায় গত পাঁচ বছরে এই মহাসড়কের কবলে প্রাণ হারিয়েছে শিক্ষার্থী ও পথচারী সহ ৫ (পাঁচ) এবং আহত অর্ধশত  জন। সন্তানদের গন্তব্য স্থানে পৌঁছাতে এটি একটি বড় বাঁধা এমনই মন্তব্য করে অভিবাবক ও স্থানীয়রা বলেন  উপজেলার আড়পাড়া সরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়, ১৮ নং আড়পাড়া মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকে প্রতি বছর মেধাবী শিক্ষার্থীরা দেশের শীর্ষ স্থানীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের পড়াশুনা সম্পন্ন করে দেশ ও জাতির  কল্যাণ বয়ে আনছে। এছাড়া সেওজগাতী আদর্শ মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়, শতখালি মাধ্যমিক বিদ্যালয়, দিঘী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়, কৃষ্ণপুর সরাকরি প্রাথমিক বিদ্যালয় সহ উপজেলার প্রায় ২০টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের সম্মুখে একটি করে স্পীডব্রেকার প্রয়োজন যাতে করে শতাধিক শিক্ষার্থী ও পথচারী নির্দ্বীধায় রাস্তা পারাপার করতে পারে। এ ব্যাপারে এ কে এম খায়রুল আলম, প্রধান শিক্ষক আড়পাড়া সরকারী মাধ্যমিক বিদ্যালয়, ইয়াসমিন আক্তার আড়পাড়া সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় স্বপন বিশ্বাস সেওজগাতী আদর্শ মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয় বলেন, বিদ্যালয়ের পাশ দিয়ে যে সড়কটি রয়েছে যেখান দিয়ে প্রতি দিন শতশত নসিমন, করিমন, পিক-আপ ও মালবাহী ট্রাক চলাচল করে। চলাচলের সময় বিদ্যালয়ের নিকটে এসে গতি কমানোর কথা থাকলেও তারা তা না মানায় খুবই ঝুঁকি নিয়ে চলাচল করতে হচ্ছে এতে যেকোন সময় দূর্ঘটনা ঘটতে পারে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ