শনিবার ০৪ জুলাই ২০২০
Online Edition

ক্রিকেট খেলা দেখাকে কেন্দ্র করে

পলাশবাড়ী (গাইবান্ধা) সংবাদদাতা : গাইবান্ধার পলাশবাড়ীতে বিপিএল ক্রিকেট খেলা দেখাকে কেন্দ্র করে মারপিটে শাহিন মিয়া (২৩) রক্তাক্ত গুরুতর জখম হয়েছে। এ ব্যাপারে থানায় অভিযোগ দায়ের। অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, গত ১৩ জানুয়ারি সন্ধ্যায় উপজেলা সদরের নুনিয়াগাড়ী দক্ষিণ বন্দর সাবু মিয়ার বাইসাইকেল মেকানিকের দোকানের সামনে শাহিন মিয়াসহ অন্যান্যরা ক্রিকেট খেলা দেখছিল। এক পর্যায়ে আসামীদ্বয়ের সাথে অন্যান্য লোকদের ক্রিকেট খেলা দেখাকে কেন্দ্র করিয়া তর্কবিতর্কের সৃষ্টি হয়। এতে শাহিন মিয়া তাদের উভয়ের মধ্যে বিষয়টি নিস্পত্তি করিয়া দেয়। আসামীদ্বয়ের সহিত শহিন মিয়ার পূর্ব হতে পারিবারিক ও সামাজিক বিষয়াদি নিয়ে মনোমালিন্য চলে আসছিল। ওই সুযোগে আসামীগণ নুনিয়াগাড়ী গ্রামের মফিজার রহমানের ছেলে জাইদুল ইসলাম পানা ও তার ছেলে জাহিদ মিয়াসহ অন্যান্য শাহিন মিয়ার উপর লোহার রড ও পাইপ দ্বারা এলোপাথারী হামলা চালিয়ে রক্তাক্ত গুরুতর জখম করে। স্থানীয়রা শাহিন মিয়াকে উদ্ধার করে প্রথমে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। শাহিনের অবস্থার অবনতি হলে তাকে রংপুর মেডিকেল হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়। এ ব্যাপারে শাহিন মিয়ার বড় ভাই এনামুল হক বাদী হয়ে এজাহারভূক্তসহ অজ্ঞাতনামা ২/৩ জনের নাম উল্লেখ পূর্বক থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন।     
কম্বল বিতরণ
গাইবান্ধার পলাশবাড়ী উপজেলায় মুক্তিযোদ্ধা, শহীদ মুক্তিযোদ্ধা ও দুঃস্থ অসহায় পরিবারের মাঝে ২ হাজার ২শ’ শীতবস্ত্র (কম্বল) বিতরণ করা হয়েছে। গত রোববার সন্ধ্যায় উপজেলার মনোহরপুর ইউপি’র কাজির বাজার ঢাকা মার্কেট চত্ত্বরে এসব কম্বল বিতরণ করেন, গাইবান্ধা জেলা আওয়ামী লীগ উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্য ও মনোহরপুর ইউপি’র সাবেক চেয়ারম্যান উত্তরবঙ্গের শীতার্ত দুস্থ অসহায় মানুষের নিবেদিত প্রাণ মোঃ মাজেদার রহমান দুলু। এসময় পলাশবাড়ী মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার আব্দুর রহমান, মুক্তিযোদ্ধা মজিবর রহমান, সিরাজুল ইসলাম, আওয়ামী লীগ নেতা জীম মন্ডলমহ বীর মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের লোকজন উপস্থিত ছিলেন। উল্লেখ্য; মাজেদার রহমান দুলু দীর্ঘ কয়েক বছর যাবৎ গাইবান্ধা জেলাসহ পলাশবাড়ী-সাদুল্লাপুর উপজেলা দুঃস্থ অসহায় শীতার্ত মানুষের মাঝে হাজার হাজার কম্বল বিতরণ করে আসছেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ