রবিবার ০৯ আগস্ট ২০২০
Online Edition

নাটোর বাফার গুদামের ঠিকাদারকে হাতুড়ি পেটা

নাটোর সংবাদদাতা : নাটোরে বাফার সার গুদামে সার চুরি ঠেকাতে কাঁটা তারের বেড়া দেয়ার সময় ঠিকাদার আলফাজুল আলমকে হাতুড়ি পেটা করে একটি পরিবারের লোকজন। যেকোন সময় সার লোড আনলোড বন্ধ হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে। নাটোর বাফার গুদামের দীর্ঘদিনের পুরাতন ঠিকাদার আলফাজুল আলম জানান, অনেক সময়ে অতিরিক্ত সার এসে গেলে গুদামের ধারণ ক্ষমতা না থাকায় উন্মুক্ত জায়গায় রাখতে হয়। বাফার সার গুদামের ভিতর দিয়ে পায়ে চলা পথ থাকায় বাইরে রাখা সার মাঝে মধ্যেই চুরি হয়ে যায়। চুরি ঠেকাতে গুদাম কর্তৃপক্ষ তাকে দক্ষিণ-পশ্চিম কোণে কাঁটা তারের বেড়া দিয়ে দিতে বলে। সেই নির্দেশনা অনুযায়ী তিনি শুক্রবার কাজের লোকজন নিয়ে কাঁটা তারের বেড়া দেয়ার কাজ শুরু করেন। এসময় প্রতিবেশী হায়দার আলী কসাই ও তার ছেলে রানা আহমেদসহ আরও কয়েকজনকে সাথে নিয়ে সেখানে এসে বেড়া দেয়ার কাজে বাধা দেয়। এসময় তার সাথে বাক-বিতন্ডার এক পর্যায়ে তারা ঠিকাদার আলফাজুল আলম ও তার কর্মীদের উপর চড়াও হয়ে মারধর করে আহত করে। এরই এক পর্যায়ে তারা হাতুড়ি দিয়ে আলফাজুল আলমের মাথায় আঘাত করার চেষ্টা করলে বাধা দেয়ায় হাতুরীর আগাতে হাত ফেটে যায়। বাফার গুদামের লোকজন তাৎক্ষণিক তাকে নাটোর আধুনিক সদর হাসপাতালে নিয়ে চিকিৎসার ব্যবস্থা করেন। তার হাতে কয়েকটি সেলাই দিতে হয়েছে। এ ঘটনায় বাফার গুদামের ইনর্চাজ মোঃ আব্দুল গাফ্ফার নাটোরের জেলা প্রশাসক, পুলিশ সুপার ও কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালকে চিঠি দিয়ে জানিয়েছেন। এদিকে ঠিকাদার আলফাজুল আলম নিরপত্তাহীনতায় তার পক্ষে বাফার গুদামে সার লোড আনলোড করা অসম্ভব হয়ে পড়েছে। তার জীবনের নিরাপত্তা নিশ্চিত না হলে সারের এই পিক টাইমে যে কোন সময় লোড আনলোড করার কাজ বন্ধ হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা রয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ