রবিবার ০৯ আগস্ট ২০২০
Online Edition

সন্দ্বীপে যুবদল নেতার হাত-পা কেটে দিয়েছে আওয়ামী সন্ত্রাসীরা

চট্টগ্রাম-৩ আসনে সন্দ্বীপের হারামিয়া ইউনিয়নে শনিবার দুপুরে ধানের শীষের প্রার্থী মো. কামাল পাশার ব্যানার লাগানোর সময় দেশীয় ধারালো অস্ত্র নিয়ে হামলা চালায় যুবলীগ ও ছাত্রলীগ সন্ত্রাসীরা।
এ সময় যুবদল নেতা বেলাল উদ্দিনের হা-পা কেটে দেয় সন্ত্রাসীরা। তাকে গুরত্বর আহতাবস্থায় চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তার প্রচুর রক্তক্ষরণ
হয়েছে। বর্তমানে তার অবস্থা আশংকাজনক।
এদিকে রহমতপুর ইউনিয়নে বিএনপি নেতা মাহফুজুর রহমানের ওপর হামলা চালায়
আওয়ামী সন্ত্রাসীরা। এসময় মাহফুজুর রহমান ও তার ছেলে মাহবুবুর রহমানকে ব্যাপক মারধর করা হয়।
এছাড়া শনিবার সন্দ্বীপের বিভিন্ন এলাকায়   বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠনের ১৫ জন নেতাকর্মী বাসায় পুলিশ হামলা চালিয়ে পরিবারের সদস্যদের লাঞ্ছিত ও বাসা-বাড়ী ভাঙচুর করে। উপজেলা যুবদলের সাংগঠনিক সম্পাদক মো. আজিজ, রহমতপুর ইউনিয়ন বিএনিপর নেতা আব্দুর রহিম মেম্বার, আমানুল্লাহ ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতি মো. ফিরোজ খান, সাধারণ সম্পাদক মহিউদ্দিন বাহাদুর, বিএনপি নেতা আলগমগীর মেম্বার, গাছুয়া ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রহিম, সাংগঠনিক সম্পাদক ইয়াসিন, মগধরা ইউনিয়ন বিএনপি নেতা মো. শামসুদ্দিন, সন্তোষপুর ইউনিয়ন বিএনপি নেতা আশরাফুদ্দিন জনি, হারামিয়া ইউনিয়ন বিএনপি নেতা মো. বেলাল উদ্দিন, মুছাপুর ইউনিয়নের ছাত্রদল নেতা মো. গোফরান উদ্দিনের বাসায় পুলিশ এ ন্যাক্কারজনক হামলা চালায়।
চট্টগ্রাম-২ আসনে বিএনপি নেতা গ্রেফতার--চট্টগ্রাম-২ আসনে ফটিকছড়ির হারয়ালছড়ি ইউনিয়ন বিএনপির সাবেক সাধারণ সম্পাদক নুরুল ইসলামকে শনিবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে বাসার সামনে থেকে তুলে নিয়ে গেছে পুলিশ।
নুরুল ইসলাম তার বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মামলায় হাইকোর্ট থেকে জামিনে থাকলেও পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে ভূজপুর থানায় নিয়ে যায়। প্রেস বিজ্ঞপ্তি

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ