বুধবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০
Online Edition

চৌহালীতে মামার লাঠির আঘাতে দুই ভাগ্নের মৃত্যু ॥ ইউপি সদস্য আটক

বেলকুচি (সিরাজগঞ্জ) সংবাদদাতা, ৯ ডিসেম্বর: সিরাজগঞ্জের চৌহালীতে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে মামার লাঠির আঘাতে কাওসার রহমান ও মিল্টন রহমান নামে দুই ভাগ্নের মৃত্যু হয়েছে। এঘটনায় পুলিশ উপজেলার খাসপুকুরিয়া ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য শিরিন সুলতানাকে আটক করেছে । শনিবার দুপুরে ও ভোর রাতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তাদের মৃত্যু হয়। নিহত কাওসার রহমান ও মিল্টন রহমান চৌহালী উপজেলার খাসপুকুরিয়া ইউনিয়নের পূর্ব কোদালিয়া গ্রামের আলতাফ আলীর ছেলে । চৌহালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জাহাঙ্গীর আলম জানান, জমি সংক্রান্ত বিষয়ে নিহত কাওসার রহমানের পরিবারের সাথে তার মামা রফিকুল ইসলাম বকুলের বিরোধ চলে আসছিল । গত শুক্রবার বিকেলে এনিয়ে উভয় পরিবারের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। এরই এক পর্যায়ে রফিকুল ইসলামের লোকজন কাওসার রহমান ও তার ভাই মিল্টন রহমানকে লাঠি দিয়ে পিটিয়ে আহত করে। গুরুতর আহত কাওসার রহমান ও মিল্টন রহমানকে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে শনিবার দুপুরে চিকিৎসাধীন অবস্থার মিল্টন রহমান ও শনিবার ভোরে কাওসার রহমানের মৃত্যু হয়। এঘটনায় নিহতের মা হায়াতুন নেছা বাদী হয়ে ৫ জনকে আসামি করে চৌহালী থানায় মামলা দায়ের করেন । শনিবার সকালে পুলিশ এই মামলার আসামী ইউপি সদস্য শিরিন সুলতানাকে আটক করে। পুলিশ নিহতের মৃতদেহ উদ্ধার করে সিরাজগঞ্জ বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করেছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ