শুক্রবার ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২১
Online Edition

রাজাপুরে আবারো আগুনে পুড়লো বসতঘর ও দোকান

ঝালকাঠি সংবাদদাতা: ঝালকাঠির রাজাপুরে এক সপ্তাহের ব্যবধানে আবারো অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটেছে। উপজেলার মঠবাড়ি ইউনিয়নের বাদুরতলা বাজারে সোমবার (১২ নভেম্বর) রাত পৌনে ৩টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে। এতে বাজারের ৫টি দোকান ও ১টি বসতঘর সম্পুর্ণ পুড়ে গেছে। 

সোমবার সকালে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আফরোজা বেগম পারুল ও স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান মোস্তফা কামাল সিকদার ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। 

স্থানীয়রা জানায়, আগুন দেখে ঝালকাঠি ফায়ার সার্ভিসে ফোন দেয়া হলে ঝালকাঠি, ভান্ডারিয়া ও কাউখালী ফায়ার সার্ভিসের তিনটি ইউনিট ঘটনাস্থলে আসে।

তবে ফায়ার সার্ভিসের গাড়ি আসার আগেই  বাজারের মুদি-মনোহরী, হোমিওপ্যাথিক চিকিৎসক, কসমেটিক্সের দোকান ও একটি বসতঘর পুড়ে ছাঁই হয়ে যায়। 

মো. হেমায়েত উদ্দিন, মো. কবির হোসেন, মো. শাহ আলম, মো. সোহরাব হোসেন, মো. বুলবুল’র দোকান ও বলাই শীলের একটি বসতঘর সম্পূর্ণ ভস্মিভুত হয়।

ক্ষতিগ্রস্ত হোমিও চিকিৎসক মো. শাহ আলম জানান, বিদ্যুতের সর্টসার্কিট অথবা মোবাইলের চার্জার বিস্ফোরিত হয়ে আগুনের সূত্রপাত হয়েছে বলে ধারণা করছি। এতে অন্তত ১৫ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। 

গভীর রাতে আগুন লাগা ও ফায়ার সার্ভিস আসতে বিলম্ব হওয়ায় ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ বেড়েছে।

স্থানীয় যুবক মাসুম হাওলাদার বলেন, ‘রাজাপুর ফায়ার সার্ভিস থাকলেও এর কোন কার্যক্রম নেই। তাই  অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটলে ক্ষয়ক্ষতি বেশি হচ্ছে। 

তাই যত দ্রুত সম্ভম রাজাপুর ফায়ার সার্ভিসের কার্যক্রম চালু করা প্রয়োজন।’

মঠবাড়ি ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মোস্তফা কামাল সিকদার বলেন, ‘ক্ষতিগ্রস্তদের প্রত্যেককে আমি ব্যক্তিগতভাবে দুই হাজার টাকা অর্থ সহায়তা দিয়েছি। 

এ ছাড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক মহাদয় ক্ষতিগ্রস্তদের সহায়তার আশ্বাস দিয়েছেন।’ 

এ ছাড়া রাজাপুর প্রেসক্লাব সভাপতি ও বিএমএসএফ রাজাপুর উপজেলা সভাপতি আহসান হাবিব সোহাগ ক্ষতিগ্রস্তদের নগদ অর্থ দিয়ে সহায়তা করেছেন। 

উল্লেখ্য, গত ৩ নভেম্বর উপজেলা সদরের বাঘড়ি ব্রীজের দক্ষিণ পাশে অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটে। এতে ৪টি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান পুড়ে ১০ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছিল।

প্রেসিডেন্ট স্কাউট এ্যাওয়ার্ড পেলো চকরিয়া কেন্দ্রীয় উচ্চ বিদ্যালয়ের তিন কৃতী শিক্ষার্থী 

চকরিয়া সংবাদদাতা: মহামান্য রাষ্ট্রপতি প্রদত্ত প্রেসিডেন্ট স্কাউট এ্যাওয়ার্ড-২০১৭ নির্বাচিত চকরিয়া কেন্দ্রীয় উচ্চ বিদ্যালয়ের তিন কৃতী শিক্ষার্থী পেয়েছে প্রেসিডেন্ট স্কাউট এ্যাওয়ার্ড। 

গত ৫নভেম্বর রাজধানীর কৃষিবিদ ইনিস্টিটিউট বাংলাদেশ সেমিনার মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত প্রেসিডেন্ট স্কাউট এ্যাওয়ার্ড মনোনীতদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে এ পুরস্কার গ্রহণ করেন। 

এতে প্রধান অতিথি ছিলেন চীফ স্কাউট রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ। 

পি.এস এ্যাওয়ার্ডপ্রাপ্ত চকরিয়া কেন্দ্রীয় উচ্চ বিদ্যালয়ের মেধাবি শিক্ষার্থীরা হলেন- কে.এম নাঈমুল ইসলাম, আজিজুল হাকিম তালহা ও মো. ইস্তেখার ইসমাঈল অর্নব। 

এটি তাদের স্কাউট জীবনে বাংলাদেশ স্কাউটসের সর্বোচ্চ সম্মাননা পুরস্কারে ভূষিত হন। 

এদিকে চকরিয়া কেন্দ্রীয় উচ্চ বিদ্যালয়ের তিন কৃতী শিক্ষার্থী প্রেসিডেন্ট স্কাউট এ্যাওয়ার্ড পাওয়ায় অভিনন্দন ও শুভেচ্ছা জানিয়েছেন বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি আলহাজ্ব সিরাজ আহমদ ও প্রধান শিক্ষক মোহাম্মদুল হক।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ