শনিবার ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১
Online Edition

মণিরামপুরে হানিফ পরিবহনের চাপায় প্রাণ গেল কৃষকের

মণিরামপুর (যশোর) সংবাদদাতা : মণিরামপুরে হানিফ পরিবহনের চাপায় শওকত আলী (৫৫) নামের এক কৃষক নিহত হয়েছে। নিহত শওকত পৌর এলাকার মোহনপুর গ্রামের মৃত সিরাজুল ইসলাম মোল্যার ছেলে।
সোমবার সকাল ৯ টার দিকে যশোর-সাতক্ষীরা মহাসড়কের উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের সামনে এ দুর্ঘটনা ঘটে। এসময় বিক্ষুব্ধ জনতা মহাসড়কের উপর কাঠের গুড়ি ফেলে প্রায় দেড় ঘন্টা সড়ক অবরোধ করে। পরে পুলিশের হস্তক্ষেপে অবরোধ তুলে নেয় জনতা। পুলিশ ঘাতক পরিবহনটি আটক করে থানা হেফাজতে নিয়েছে।
প্রত্যক্ষদর্শিরা জানায়, ঘটনার সময় যশোর-সাতক্ষীরা মহাসড়ক দিয়ে বাইসাইকেল যোগে বাড়ি ফিরছিলেন নিহত শওকত। এসময় বিপরীত দিক থেকে ঢাকা-মেট্রো-গ-১৫-০২৩৯ নম্বরধারি সাতক্ষীরাগামি হানিফ পরিবহন তাকে চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলে শওকতের মত্যু হয়। এসময় বিক্ষুব্ধ জনতা মহাসড়কের উপর কাঠের গুড়ি ফেলে সড়ক অবরোধ করে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে ঘাতক পরিবহনটি আটকের আশ্বাস দিলে অবরোধ তুলে নেয় জনতা। এরপর পুলিশ অভিযান চালিয়ে কেশবপুর থানা পুলিশ পরিবহনটি আটক করলেও চালক পালিয়ে যায়।
মণিরামপুর থানার ওসি সহিদুল ইসলাম জানান, ঘাতক বাসটি থানা হেফাজতে নেয়া হয়েছে এবং মরদেহ থানায় আনা হয়েছে।
যুবকের মৃত্যু : মণিরামপুরে নির্মানাধীন বাড়ির ছাদ থেকে পড়ে মেহেদী হাসান (৩২) নামের এক যুবকের মৃত্যু হয়েছে। মৃত মেহেদী হাসান উপজেলার কদমবাড়িয়া গ্রামের ক্বারী নুর মোহাম্মাদ এর সেজ ছেলে।
মৃতের স্বজনরা জানান, রবিবার সন্ধ্যায় মেহেদী হাসান অসাবধানতা বশতঃ নির্মানাধীন বাড়ির ছাদ থেকে পড়ে যায়। এতে সে গুরুতর আহত হলে যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিলে অবস্থার অবনতি হওয়ায় উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় প্রেরণ করে। পথিমধ্যে ফরিদপুর পৌছেলে রাত ১০টা দিকে মেহেদী’র মারা যায়।
মৃত মেহেদী হাসানের মোবাশ্বিয়া (৬) ও ৫ মাস বয়সী মুসশিয়া নামের একটি শিশু কন্যা রয়েছে। এদিকে শিশু কন্যার মাথায় পানি জমে থাকায় চিকিৎসাধীন রয়েছে। মৃত মেহেদীর পিতা কদমবাড়ীয়া দাখিল মাদরাসায় ক্বারী শিক্ষক হিসেবে কর্মরত।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ