মঙ্গলবার ০২ জুন ২০২০
Online Edition

ধর্ষক গ্রেফতার

রামগতি (লক্ষ্মীপুর) সংবাদদাতা: লক্ষ্মীপুরের রামগতিতে তরুণীকে ধর্ষণের অভিযোগে মো. গফুর (৫৫) নামে একজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। 

বুধবার রাতে উপজেলার চর আলগী ইউনিয়নের চর নেয়ামত গ্রাম থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। ওই দিন রাতে তরুণীর মা গফুরের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগে থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলায় মো. জমির (৩০) নামে আরও একজনকে অভিযুক্ত করা হয়েছে। জমির পলাতক রয়েছেন। গ্রেফতারকৃত গফুরকে ঈদের পরের দিন (বৃহস্পতিবার) আদালতে সোপর্দ হরা হয়েছে। গফুর চর নেয়ামত গ্রামের মো. চৌধুরীর ছেলে। সে এলাকায় দীর্ঘদিন ধরে তাবিজ-তুমার বিক্রিসহ ঝড়-ফুকের কাজ করেন। জমির একই গ্রামের তছির আহম্মদের ছেলে।

মামলার বাদি তরুণীর মা ও মামলার এহজার সুত্রে জানা যায়, তার মেয়ের সাথে প্রতিবেশী জমির প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তুলেন। এ সম্পর্কের বিষয়টি জানা-জানি হলে জমিরকে সতর্ক করা হয়। এতে সে ক্ষিপ্ত হয়ে গত ৬ আগষ্ট মেয়েকে বসত ঘরে একা পেয়ে জোরপুর্বক ধর্ষণ করেন। 

এ সময় চিৎকার দিয়ে লোকজনকে ডাকতে চাইলে মেয়েকে বিয়ের প্রলোভন দিয়ে জমির কৌশলে পালিয়ে যান। কয়েকদিন পর জমির মোবাইল ফোনে মেয়েকে জানান তার (জমির) স্ত্রী গফুর খনকারের কাছে গিয়ে তাবিজ করেছে মেয়ের সাথে সম্পর্ক নষ্ট করা জন্য। খবর পেয়ে মেয়ে গফুর খনকারের সাথে যোগাযোগ করে। এর জের ধরে গফুর খনকার মেয়ের সাথে কৌশলে সম্পর্ক করে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করতে থাকে। এ সুযোগে গত ১৭ আগস্ট  মেয়েকে বসত ঘরে একা পেয়ে জোরপুর্বক ধর্ষণ করে পালিয়ে যায়। 

রামগতি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এ টি এম আরিচুল হক জানান, এ ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে মো. গফুর ও মো. জমিরের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে রামগতি থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। গফুরকে গ্রেফতার করে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। অপর অভিযুক্ত জমিরকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ