শনিবার ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২০
Online Edition

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে উসকানিমূলক বক্তব্যের অভিযোগে আরও দুই শিক্ষার্থী গ্রেফতার

স্টাফ রিপোর্টার : নিরাপদ সড়ক আন্দোলনকে কেন্দ্র করে ইন্টারনেটে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে উস্কানিমূলক বক্তব্য দেয়ার অভিযোগে ঢাকায় আরও দুই শিক্ষার্থীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এদের একজন নাজমুস সাকিব (২৪) বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় ইউল্যাবের শিক্ষার্থী। অন্যজন আহমাদ হোসাইন (১৯) কামরাঙ্গীরচরের জামিয়া নুরানিয়া মাদরাসার শিক্ষার্থী।
সিআইডির অর্গানাইজড ক্রাইম শাখার সাইবার ক্রাইম ইউনিট মঙ্গলবার ও গতকাল বুধবার এই দুজনকে গ্রেপ্তার করে বলে জ্যেষ্ঠ সহকারী কমিশনার শারমিন জাহান জানিয়েছেন। তিনি বলেন, “সাধারণ শিক্ষার্থীদের আন্দোলনকে কেন্দ্র করে তারা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে উস্কানিমূলক প্রপাগান্ডা চালিয়েছিল, যা রাষ্ট্রের জন্য ক্ষতিকর। প্রয়োজনীয় তথ্য সংগ্রহের পর অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়েছে।” সাকিব ও হোসাইনের বিরুদ্ধে গতকাল বুধবার পল্টন থানায় তথ্য প্রযুক্তি আইনের ৫৭ (২) ও ৬৬ ধারায় মামলা হয়েছে বলে সিআইডি কর্মকর্তা শারমিন জানান।
গত ২৯ জুলাই বাসচাপায় দুই কলেজ শিক্ষার্থীর মৃত্যুর পর নিরাপদ সড়কের দাবিতে স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীরা আন্দোলনে নামলে অচল হয়ে  পড়ে ঢাকার সড়ক। সপ্তাহব্যাপী এই আন্দোলনের শেষ দিকে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীরাও নামে আন্দোলনে, তাদের সঙ্গে পুলিশের সংঘাতও বাঁধে। ওইসব ঘটনায় ঢাকায় বিভিন্ন বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের ২২ ছাত্রকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।
এদিকে শিক্ষার্থীদের আন্দোলন ভিন্ন খাতে নিতে গুজব ছড়ানোর অভিযোগে গ্রেপ্তার করা হয়েছে আলোকচিত্রী শহিদুল আলম ও অভিনেত্রী কাজী নওশাবা আহমেদকে। এর মধ্যেই সোশাল মিডিয়ায় গুজব ছড়ানোর অভিযোগে বুয়েটের এক ছাত্রকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। একই অভিযোগে ঢাকার ইডেন কলেজের শিক্ষার্থী ও কোটা সংস্কার আন্দোলনের নেতা লুৎফুন নাহার লুমাকে সিরাজগঞ্জে তার বাড়ি থেকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ