শনিবার ০৫ ডিসেম্বর ২০২০
Online Edition

আল-কুরআনের শিক্ষাই বিশ্বমানবতার মুক্তির একমাত্র গ্যারান্টি

আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন মোফাস্সিরে কুরআন, বিশিষ্ট আলেমেদ্বীন, বাংলাদেশ ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের বোর্ড অব ট্রাস্টিজের চেয়ারম্যান আল্লামা প্রফেসর সাইয়্যেদ কামাল উদ্দীন আব্দুল্লাহ জাফরী বলেন, পবিত্র রমাদান মাস মহাগ্রন্থ আল-কুরআন নাযিলের মাস। কুরআন নাযিল হওয়ার কারণে এ মাসের এতো মর্যাদা ও সম্মান। 

বিশ্ব মানবতার কল্যাণ, সমৃদ্ধি ও মুক্তির জন্য আল্লাহ তাআলা এ কুরআন নাযিল করেছেন। কুরআন পড়া, কুরআন বুঝা এবং তদানুযায়ী আমল করাই বিশ্বমানবতাকে সকল অনাচার ও অবিচার থেকে মুক্তি দিতে পারে। কুরআনই মানুষের দুনিয়া ও আখিরাতের মুক্তির একমাত্র গ্যারান্টি। তিনি সমাজের সকলকে কুরআন পড়া, কুরআন বুঝা ও এর শিক্ষা জীবনের প্রতিটি ক্ষেত্রে বাস্তবায়নের আহ্বান জানান।

 গত ২৮ মে সোমবার হোম্মদপুরস্থ গ্র্যান্ড প্রিন্স থাই এন্ড চাইনিজ রেস্টুরেন্টে নিবরাস মাদরাসা মোহাম্মদপুর ক্যাম্পাসের উদ্যোগে আয়োজিত “মাহে রমাদান ও সিয়াম সাধনা” শীর্ষক এক আলোচনা সভা ও ইফতারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ আহ্বান জানান। মাদরাসার অধ্যক্ষ মুতাছিম বিল্লাহ মাক্কীর সভাপতিত্বে উক্ত অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ মাদরাসা শিক্ষক প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউটের সহকারী অধ্যাপক, নিবরাস ফাউন্ডেশনের সেক্রেটারি জেনারেল ড. মো. নূরুল্লাহ আল-মাদানী, শরীফবাগ ইসলামীয়া কামিলা মাদরাসার মুহাদ্দিস ও বিশিষ্ট মিডিয়া ব্যক্তিত্ব মাওলানা মাহমুদুল হাসান, বাংলাদেশ ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের লেকচারার জনাব শাকের হোসাইন, অ্যারাবিক ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান ড. শাইখ মুহাম্মদ মোস্তাফিজুর রহমান, ইসলামী ব্যাংক লিমিটেড কামরাঙ্গীচর শাখার ম্যানেজার জনাব সাইদুর রহমান, নিবরাস ফাইন্ডেশনের রিসার্চ অ্যান্ড স্যোশাল ওয়েলফেয়ার সেক্রেটারি ড. মোস্তাফীজুর রহমান খান, বিশিষ্ট সমাজসেবক ও শিক্ষানুরাগী জনাব আহম হাসান নোমান। টিচার্স কো-অর্ডিনেটর জনাব উবাইদুল্লাহ জাকিরের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন মোহাম্মদপুর ক্যাম্পাসের ইনচার্জ জনাব মোঃ ওয়ালী উল্লাহ খান। প্রেস বিজ্ঞপ্তি

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ