বৃহস্পতিবার ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২
Online Edition

২০ বছর পর বিশ্বকাপে মরক্কো

২০১৮ বিশ্বকাপের বছর অংশ নিচ্ছে ৩২ দল। আফ্রিকা অঞ্চলে ফুটবলে নিজেদের জায়গা করে নিয়েছে মরক্কো। গত কয়েক বছরে চোখে পড়ার মতো উন্নতি করেছে তারা। যার বড় প্রমাণ রাশিয়া বিশ্বকাপের মূল পর্বে জায়গা করে নেওয়া। ১৯৯৮ সালে শেষবার বিশ্ব মঞ্চে খেলা আফ্রিকার দেশটি আইভরি কোস্টের মতো দলকে টপকে জায়গা করে নেয় রাশিয়ার ফুটবল বিশ্বকাপে। কোচ এর্ভে রেনার্দের গড়ে তুলেছেন শক্তিশালী রক্ষণ ও কার্যকরী মাঝমাঠ। যদিও বাছাই পর্বে বেশিরভাগ ম্যাচই ড্র করে মাঠ ছাড়তে হয়েছে তাদের। একমাত্র মালির বিপক্ষে ৬-০ গোলের জয় পাওয়া ম্যাচেই ঔজ্জ্বলতা ছড়িয়েছে মরক্কো।

র‌্যাংকিং : ৪২। বাছাই পর্বে একটি গোলও হজম করেনি মরক্কো। আফ্রিকান অঞ্চলের বাছাইয়ে ‘সি’ গ্রুপের চ্যাম্পিয়ন হয়ে তারা নিশ্চিত করে বিশ্বকাপ। আইভরি কোস্টের মতো দলকে ৪ পয়েন্টে পিছিয়ে রেখে ‘দ্য আটলাস লায়ন্স’ পেয়ে যায় রাশিয়ার টিকিট। বিশ্বকাপ গ্রুপ: কঠিন গ্রুপে পড়েছে মরক্কো। ‘বি’ গ্রুপে তাদের প্রতিপক্ষ ২০১০ সালের বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন স্পেন ও ২০১৬ ইউরো চ্যাম্পিয়ন পর্তুগাল। ইউরোপের দুই শক্তির সঙ্গে এশিয়ার ‘পাওয়ার হাউজ’ ইরান।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ