বুধবার ২০ জানুয়ারি ২০২১
Online Edition

গাজীপুর সিটি নির্বাচনে লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড তৈরি করুন -হাসান উদ্দিন সরকার

গাজীপুর সংবাদদাতাঃ মাদক বিরোধী অভিযানে আগে মাদকের গডফাদারদের পাকড়াও করার দাবি জানিয়েছেন গাজীপুর সিটি নির্বাচনে ২০ দলীয় জোট মেয়র প্রার্থী হাসান উদ্দিন সরকার। তিনি বলেন, মাদকের গডফাদাররা গ্রেফতার হলে ছোট খাট মাদক কারবারিরা এমনিতেই পালাবে। কোন প্রভাবশালী গডফাদার যদি সিটি নির্বাচনে প্রার্থী হয়ে থাকে তাকেও যেন ছাড় দেওয়া না হয় এমন দাবিও জানান তিনি। গাজীপুর সিটি নির্বাচনী এলাকায় মাদক বিরোধী অভিযানে জনমনে যাতে আতঙ্ক সৃষ্টি না হয় বা নির্বাচন যাতে প্রভাবিত না হয় সেদিকে খেয়াল রেখে নিরপেক্ষতার সাথে অভিযান চালাতে আইন শৃংখলা বাহিনীর প্রতি দাবি জানান তিনি। নির্বাচনকে প্রভাবিত করতে আবাসিক হোটেলগুলোতে যাতে সন্ত্রাসীরা আশ্রয় নিতে না পারে এবং এসব কথিত আবাসিক হোটেলের অসামাজিক কার্যকলাপ দ্রুত বন্ধের ব্যবস্থা নিতেও তিনি জোর দাবি জানান। গত মঙ্গলবার টঙ্গীতে নিজ বাসভবনে বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে সাক্ষাৎকারে তিনি এসব দাবি জানান। প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামীলীগের মেয়র প্রার্থীর অব্যাহত আচরণবিধি লঙ্ঘনের অভিযোগ করে তিনি বলেন, ‘নির্বাচনে সবার জন্য সমান সুযোগ নিশ্চিত করা নির্বাচন কমিশনের দায়িত্ব। কিন্তু গাজীপুর সিটি নির্বাচনেও ইসি এখনো লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড তৈরি করতে পারেনি। একজন বাসা থেকে বের হতে পারবেন না, আবার অন্য জনকে পুরো এলাকায় প্রচারণার সুযোগ দেওয়া হবে এ ধরণের পরিবেশ কি লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড প্রমাণ করে ? গাজীপুরের জনগণ সবই দেখছেন।’ তিনি নির্বাচন কমিশনের প্রতি দাবি জানিয়ে বলেন, আচরণবিধি লঙ্ঘনের দায়ে ব্যবস্থা নেওয়া হোক অথবা সকলকে সমান সুযোগ দেওয়া হোক। তিনি বলেন, সরকারি সুবিধাভোগী শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো বন্ধ রেখে নির্বাচনী প্রচারণা চালানো হলো। প্রায় সকল জাতীয় সংবাদপত্রে খবর প্রকাশ হলো, অথচ কোন ব্যবস্থা নেয়া হলো না; এ অবস্থায় নির্বাচন কমিশন এখনো কি করে নিজেদেরকে নিরপেক্ষ বলে দাবি করেন। তিনি বলেন, প্রতিদ্বন্দ্বী মেয়র প্রার্থী এযাবত যতগুলো স্থানে আচরণবিধি লঙ্ঘন করে প্রচারণা চালিয়েছেন ততগুলো স্থানে অন্যদেরকে সমহারে প্রচারণার সুযোগ দেওয়া হোক। আর সেই সুযোগ দেয়া না হলে আচরণবিধি লঙ্ঘনের দায়ে উপযুক্ত ব্যবস্থা নিয়ে নির্বাচন কমিশন নিজেদেরকে নিরপেক্ষ প্রমাণ করুন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ