শুক্রবার ১৪ আগস্ট ২০২০
Online Edition

সরকার অন্যায়ভাবে গ্রেফতার করে  চরম অমানবিক কাজ করেছে  - ডা. শফিকুর রহমান

 

রাজশাহীর গোদাগাড়ি থেকে জামায়াতে ইসলামীর সদস্য (রুকন) আবুল হাসান, তার স্ত্রী, তার দুই কন্যা ও তার ভাইয়ের তিন কন্যাকে গ্রেফতারের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর সেক্রেটারি জেনারেল ডা. শফিকুর রহমান বলেন, সরকার হয়রানি করার হীন উদ্দেশ্যেই জামায়াতে ইসলামীর সদস্য (রুকন) আবুল হাসান, তার স্ত্রী, তার দুই কন্যা এবং তার ভাইয়ের তিন কন্যাকে অন্যায়ভাবে গ্রেফতার করে চরম অমানবিক কাজ করেছে। 

গত বুধবার রাতে  দেয়া বিবৃতিতে তিনি তাদের মুক্তির দাবি জানিয়ে বলেন, গত ১৮ এপ্রিল ভোর রাতে বাড়ি থেকে তাদের গ্রেফতার করার পর সরকারের আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী অন্যায়ভাবে তাদেরকে আটক করে রেখেছে। ১৮ এপ্রিল সারা দিন অতিবাহিত হওয়া সত্ত্বেও তাদেরকে আদালতে সোপর্দ করা হয়নি। যদি তারা কোন অপরাধ করে থাকে, তাহলে আদালতে সোপর্দ করার বিধান রয়েছে। কিন্তু আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী তাদেরকে আদালতে সোপর্দ না করে নিজেদের হেফাজতে রাখায় স্পষ্টভাবে প্রতীয়মান হচ্ছে যে, সরকার রাজনৈতিকভাবে হয়রানি করার হীন উদ্দেশ্যেই তাদেরকে গ্রেফতার করেছে। 

তিনি বলেন, গ্রেফতারকৃতরা প্রায় সকলেই ছাত্রী। সুতরাং তাদের নিয়ে সরকারের ষড়যন্ত্র ও তাদেরকে আটক করে রাখা সম্পূর্ণ অন্যায়, অযৌক্তিক ও অসাংবিধানিক। তিনি সরকারের এহেন কর্মকা-ের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান এবং অবিলম্বে আবুল হাসান, তার স্ত্রী, তার দুই কন্যা এবং তার ভাইয়ের তিন কন্যাসহ গ্রেফতারকৃত সকলের মুক্তি দাবি করেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ