সোমবার ১৩ জুলাই ২০২০
Online Edition

ডুমুরিয়া-কালীতলা সড়কের বেহাল দশা

খুলনা অফিস : দীর্ঘদিন সংস্কার অভাবে খুলনার ডুমুরিয়ার খর্ণিয়া ইউনিয়নের পশ্চিম বামুন্দিয়া গ্রামের মাহাতাপ সড়কের (আইডি নং-৫০৮৯) বাজনদারপাড়া থেকে কালীতলা পর্যন্ত অন্তত আড়াই কিলোমিটার রাস্তা বেহাল অবস্থায় রয়েছে। সড়কটির বিভিন্নস্থানে পাড় ভেঙে আর ইট উঠে গিয়ে বর্তমানে মরণফাঁদে পরিণত হয়েছে। ফলে ওই গ্রামের বাসিন্দাদের চলাচলে দারুণ ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে। জানা গেছে, ডুমুরিয়া উপজেলার বামুন্দিয়া গ্রামে অন্তত ২০ হাজার মানুষের বসবাস। এসব বাসিন্দাদের নিত্য চলাফেরায় একমাত্র ব্যবহার করতে হয় বাজনদারবাড়ি থেকে কালীতলা পর্যন্ত অন্তত আড়াই কিলোমিটার সড়ক। এছাড়া পার্শ্ববর্তী খর্ণিয়া, ডুমুরিয়া, গাবতলা ও টিপনা বাজারসহ আশপাশ স্থানে যাতায়াতেরও সড়কটি ব্যবহৃত হয়। সঙ্গতকারণে সড়কটির গুরুত্ব বিবেচনায় ১৯৯৭ সালে সড়কটিতে ইটের সোলিং বসানো হয়। কিন্তু এরপর ২০ বছরেও ওই সড়ক আর সংস্কার হয়নি। যা ফলে সড়কটি বর্তমানে চলাচলের একদম অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। সড়কের বেশিরভাগ জায়গার ইট উঠে গেছে। অনেক স্থানের সড়কের পাশ ভেঙ্গে পুকুর, নালা ও বিলে চলে গেছে। ফলে সড়ক অনেক সরু আর পুরো সড়কের পিঠ উঁচু হয়ে নড়বড় করছে। যার ফলে ওই গ্রামের বাসিন্দাদের চলাচলে দারুণ ভোগান্তি পোহাতে হচ্ছে। প্রায় ঘটছে ছোট বড় দুর্ঘটনা। এলাকাবাসী জানায়, দীর্ঘদিন  সংস্কার আর রক্ষণাবেক্ষণের অভাবে সড়কটির আজ এ দশা। অধিকাংশ জায়গার অর্ধেক সড়ক পর্যন্ত ভেঙে গেছে। ইট গুলো ছড়িয়ে ছিটিয়ে ও উঁচু-নিচু হয়ে পড়ে আছে। কোনোভাবেই যানবাহনে নিরাপদে চলাচলের জো নেই। আর সামান্য বৃষ্টিতে সড়কটি আরও বেশি ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়ে। এ অবস্থায় পুরো সড়ক এখন মরণফাঁদে পরিণত হয়েছে। তাই এখনই সড়কটি পুনঃনির্মাণ করা জরুরী। স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিপ্তরের নির্বাহী প্রকৌশল রাকিব উল আলম বলেন, সড়কটি সংস্কারের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ