সোমবার ০৩ আগস্ট ২০২০
Online Edition

চীন সফরে উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং-উন!

উত্তর কোরিয়ার প্রয়াত নেতা কিম জং-ইল এই রঙের ট্রেন ব্যবহার করেছিলেন

সংগ্রাম অনলাইন ডেস্ক: উত্তর কোরিয়ার একজন গুরুত্বপূর্ণ কর্মকর্তাকে বহনকারী একটি ট্রেন চীনের রাজধানী বেইজিংয়ে প্রবেশ করেছে বলে জাপানি গণমাধ্যম খবর দিয়েছে। তিনটি অজ্ঞাত সূত্রের বরাত দিয়ে ব্লুমবার্গ নিউজ জানিয়েছে, ওই কর্মকর্তা স্বয়ং উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং-উন।

টোকিও-ভিত্তিক নিপ্পন নিউজ নেটওয়ার্কে প্রকাশিত ভিডিও ফুটেজে সবুজ রঙের ওপর হলুদ লাইন আঁকা একটি ট্রেনকে বেইজিংয়ে প্রবেশ করতে দেখা গেছে। ওই নেটওয়ার্ক জানিয়েছে, কিম জং-উনের পিতা প্রয়াত নেতা কিম জং-ইল ২০১১ সালে চীন সফরের সময় এই ট্রেনটি ব্যবহার করেছিলেন। ইল চীন সফর শেষ করার পরেই কেবল ওই সফরের খবর প্রচার করা হয়েছিল।

বেইজিং রেলওয়ে স্টেশনের বাইরের একজন দোকানদার সোমবার বিকেলে ‘অস্বাভাবিক’ দৃশ্য দেখার বর্ণনা দিয়েছেন। তিনি বলেছেন, রেলওয়ে স্টেশন সংলগ্ন সড়ক ও আশপাশের এলাকায় তিনি বিপুল সংখ্যক পুলিশ মোতায়েন থাকতে দেখেছেন। তিনি বার্তা সংস্থা এএফপিকে বলেন, এ সময় রেলওয়ে স্টেশনটি সাধারণ মানুষের জন্য বন্ধ করে দেয়া হয়েছিল।

২০১১ সালে চীন সফরে কিম জং-ইল (সর্বডানে- তার ডানপাশে চীনের তৎকালীন প্রেসিডেন্ট হু জিনতাও)

এ ছাড়া, পুলিশ বেইজিংয়ের তিয়ানানমেন চত্বর থেকে পর্যটকদের সরিয়ে দিয়েছে বলে বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে। ওই চত্বর সংলগ্ন গ্রেট হলে উচ্চ-পর্যায়ের বৈঠক থাকলে সাধারণত সেখান থেকে পর্যটকদের সরানো হয়।

চীন পিয়ংইয়ংয়ের একমাত্র বড় মিত্র হলেও উত্তর কোরিয়ার পরমাণু অস্ত্রের পরীক্ষাকে কেন্দ্র করে দু’দেশের মধ্যে কিছুটা উত্তেজনা রয়েছে।

এ খবরের ব্যাপারে উত্তর কোরিয়া বা চীনের পক্ষ থেকে এখনো আনুষ্ঠানিকভাবে কিছু জানানো হয়নি। দু’দেশের রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যমও এ ব্যাপারে এখন পর্যন্ত নীরব রয়েছে। তবে যদি এ খবর সত্য হয় তাহলে তা হবে দু’দেশের কূটনৈতিক সম্পর্কে উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি।

দক্ষিণ কোরিয়ার একজন সরকারি মুখপাত্র সোমবার বলেছেন, “সরকার সংশ্লিষ্ট দেশগুলোর সঙ্গে ঘনিষ্ঠ যোগাযোগ রক্ষা করছে এবং পরিস্থিতি পর্যেবক্ষণ করছে। ”

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ