শনিবার ১১ জুলাই ২০২০
Online Edition

ক্ষেপণাস্ত্রের গতিবিধি শনাক্ত করার শক্তিশালী ব্যবস্থা পাকিস্তানকে দিল চীন

২৩ মার্চ, পার্স টুডে : চীন পাকিস্তানের কাছে ক্ষেপণাস্ত্রের নজরদারি ও গতিবিধি শনাক্ত করার কাজে ব্যবহৃত অত্যাধুনিক ট্র্যাকিং সিস্টেম বিক্রি করেছে। ভারতীয় সংবাদ মাধ্যমের পরিবেশিত খবরে এ দাবি করা হয়েছে।

অবশ্য, এ খাতে আর্থিক লেনদেনের কোনো হিসাব খবরে দেয়া হয়নি। এতে বলা হয়েছে, ইসলামাবাদ যখন সক্রিয় ভাবে সামরিক অস্ত্রভা-ারের উন্নয়ন ঘটাচ্ছে তখন এ ব্যবস্থা পাকিস্তানের কাছে বিক্রি করা হয়। ভারতীয় সংবাদ মাধ্যমের খবরে আরো দাবি করা হয়েছে, এ গুরুত্বপূর্ণ ব্যবস্থা পাকিস্তানের কাছে বিক্রির মধ্য দিয়ে দক্ষিণ এশিয়ায় ক্ষমতার ভারসাম্য নষ্ট হবে।

চীনা দৈনিক সাউথ চায়না মর্নিং পোস্টের বরাত দিয়ে এ খবরে আরো বলা হয়েছে, পাকিস্তান এরই মধ্যে ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা কেন্দ্রে এ ব্যবস্থা মোতায়েন করেছে। নতুন ক্ষেপণাস্ত্রের উন্নয়ন এবং পরীক্ষা চালানোর লক্ষ্য সামনে রেখে এটি মোতায়েন করা হয়েছে। ভারত ৫০০ কিলোমিটার পাল্লার অগ্নি-৫ আন্তমহাদেশীয় ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা চালানোর মাত্র দু'মাসের মাথায় এ ব্যবস্থা পাকিস্তানের কাছে বিক্রি করে চীন। অগ্নি-৫ দিয়ে বেইজিং ও সাংহাইয়ের লক্ষ্যবস্তুতে হামলা করা সম্ভব হবে। এ ছাড়া, রাজস্থানের পোখরানে ভারত সুপারসনিক ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্র ব্রাহ্মস পরীক্ষা চালানোর মাত্র এক দিন পর এ খবর প্রকাশিত হয়।

নিরাপত্তা বিশ্লেষক এবং বিশেষজ্ঞদের বেশির ভাগই মনে করেন, দীর্ঘপাল্লার আইসিবিএম ক্ষেপণাস্ত্রের ক্ষেত্রে পাকিস্তানের চেয়ে অনেক এগিয়ে আছে ভারত। কিন্তু একযোগে স্বতন্ত্র কয়েকটি লক্ষ্যে পরমাণু আঘাত হানতে সক্ষম এমআইআরভি নামের ক্ষেপণাস্ত্র তৈরির চেষ্টা করছে পাকিস্তান।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ