বুধবার ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২০
Online Edition

অধ্যাপক মুজিবসহ ১০ নেতাকর্মী জেলে

রাজশাহী অফিস : জামায়াতে ইসলামীর ভারপ্রাপ্ত আমীর ও সাবেক সংসদীয় দলের উপনেতা অধ্যাপক মুজিবুর রহমানসহ সংগঠনটির আটক ১০ নেতাকর্মীকে বিশেষ ক্ষমতা আইনে দায়ের করা মামলায় গ্রেফতার দেখিয়ে গতকাল বিকেলে আদালতে নেয়া হয়। পরে তাদের রাজশাহী কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানো হয়।
পুলিশ ও জামায়াত নেতাদের আইনজীবীরা জানান, পুলিশ বাদী হয়ে আটক জামায়াত নেতৃবৃন্দসহ ২৩ জনের নাম উল্লেখসহ অন্তত আরো ১৫-২০ জনকে আসামী করে থানায় মামলা দায়ের করে। পরে বিশেষ ক্ষমতা আইনে দায়ের করা মামলায় আটককৃত জামায়াত নেতাদের গ্রেফতার দেখানো হয়। বিকেলে তাদের আদালতে নেয়া হয়। এ সময় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আদালতে নয় জনের রিমান্ড আবেদন করা হয়। এরপর আদালত রিমান্ড আবেদনের শুনানির জন্য মঙ্গলবার দিন ধার্য করে জামায়াত নেতাদের রাজশাহী কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন। এর আগে গতকাল সোমবার সকাল ৯টায় নগরীর হেতেম খাঁ ছোট মসজিদ এলাকায় অবস্থিত স্থানীয় জামায়াত নেতা মাওলানা মুজিবর রহমানের বাসা থেকে তাদের আটক করা হয়। এ সময় বাসার মালিক জামায়াত নেতা মাওলানা মুজিবর রহমানকেও আটক করা হয়। পরে বিশেষ ক্ষমতা আইনে থানায় দায়ের করা মামলায় আটককৃত জামায়াত নেতাদের গ্রেফতার দেখানো হয়।
তারা হলেন- জামায়াতে ইসলামীর কেন্দ্রীয় কর্মপরিষদ সদস্য ও রাজশাহী মহানগর আমীর প্রফেসর ড. এম আবুল হাশেম (৭১), কেন্দ্রীয় কর্মপরিষদ সদস্য ও রাজশাহী মহানগর সেক্রেটারি অধ্যক্ষ সিদ্দিক হোসেন, রাজশাহী পশ্চিম জেলা আমীর আব্দুল খালেক (৫৫), রাজশাহী পূর্ব জেলা আমীর রেজাউর রহমান (৭০), চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা আমীর আবুজার গিফারী, জামায়াতের রাজশাহী অঞলের পরিচালক অধ্যাপক রফিকুল ইসলাম (৬৪), রাজশাহী পূর্ব জেলা নায়েবে আমীর অধ্যাপক মইনুল হোসেন (৫২) ও জামায়াত কর্মী তৈয়ব আলী (২৮)। এর মধ্যে জামায়াতে ইসলামীর কেন্দ্রীয় কর্মপরিষদ সদস্য ও রাজশাহী মহানগর আমীর প্রফেসর ড. এম আবুল হাশেমের রিমান্ড আবেদন করেনি পুলিশ।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ